উত্তরপ্রদেশে শুরু হওয়া জায়গার নাম বদলের নয়া ট্রেন্ড এবার দক্ষিণেও। হায়দরাবাদের নাম পাল্টে ভাগ্যনগর করার দাবি জানালেন তেলঙ্গানার এক বিজেপি নেতা। তাঁর দাবি, মুসলিম শাসকেরাই এই শহরের নাম ভাগ্যনগর থেকে হায়দরাবাদ করে দিয়েছিলেন।

আগামী ৭ ডিসেম্বরর তেলঙ্গানা বিধানসভায় নির্বাচন। দক্ষিণের এই রাজ্যে লড়াই এবার ত্রিমুখী। বিধানসভার দখল নিতে মরিয়া কংগ্রেস নেতৃত্বাধীন মহাজোট, তেলঙ্গানা রাষ্ট্র সমিতি (টিআরএস) এবং বিজেপি, এই তিনটি শক্তিই।  অনেকটা উত্তরপ্রদেশের ধারা অনুসরণ করেই, ভোটের আগে তেলঙ্গানাতেও নাম বদলের ইস্যু সামনে নিয়ে এল বিজেপি । আর এই প্রচারে তারা হাতিয়ার করল হায়দরাবাদকেই।

তেলঙ্গানা বিজেপির অন্যতম নেতা রাজা  সিংহের দাবি, ষোড়শ শতাব্দীতে কুতুব শাহী নবাবেরাই এই শহরের নাম পাল্টে হায়দরাবাদ করে দিয়েছিলেন। তার আগে দক্ষিণের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ এই শহরের নাম ছিল ভাগ্যনগর। বিজেপি ক্ষমতায় এলে প্রধান লক্ষ্যই হবে এই শহরের নাম পাল্টে ফের ভাগ্যনগর করে দেওয়া।

আরও পড়ুন: মন্দির-মসজিদ নয়, বিতর্কিত জমিতে শিশুদের জন্য মাঠ চাইছে অযোধ্যা

অবশ্য শুধু হায়দরাবাদই নয়, বিজেপির নজরে আছে সেকেন্দ্রাবাদ এবং করিমনগরের মতো আরও বেশ কয়েকটি জায়গাও। ক্ষমতায় এলে একে একে সব বদলে ফেলা হবে বলে জানিয়েছেন এই বিজেপি নেতা।

আরও পড়ুন: শবরীমালা নিয়ে রথে বিজেপি, পথে কংগ্রেস

শুধু তেলঙ্গানা বা উত্তরপ্রদেশ নয়, সারা দেশ জুড়েই এখন চলছে নাম বদলে দেওয়ার ট্রেন্ড। ফৈজাবাদ হয়েছে অযোধ্যা। গুজরাতে আমদাবাদের নাম বদলে কর্ণাবতী করার প্রস্তাবও সামনে এসেছে। আগ্রা শহরের নামও আগ্রাভন করার দাবি উঠেছে ইতিমধ্যেই।  সেই তালিকাতেই নয়া সংযোজন এবার হায়দরাবাদ।

(দেশজোড়া ঘটনার বাছাই করা সেরা বাংলা খবর পেতে পড়ুন আমাদের দেশ বিভাগ।)