• সংবাদ সংস্থা 
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

শ্লীলতাহানির মামলা থেকে মুক্তি পেতে মেয়ে সেজে আদালতে!

aaaaa
মামলা থেকে রেহাই অভিযুক্ত ব্যক্তি পেতে মহিলা সেজে আদালতে। অলঙ্করণে তিয়াসা দাস।

বছর খানেক আগে তাঁর বিরুদ্ধে শ্লীলতাহানির অভিযোগ এনেছিলেন এক মহিলা সহকর্মী। সেই অভিযোগ থেকে রেহাই পেতে আদালতে এসে অদ্ভুত কাণ্ড করলেন এক ব্যক্তি। মেয়েদের পোশাক পরে, মেকআপ করে, বড় বড় চুল রেখে চলে এসেছিলেন আদালতে। বিচারকের কাছে দাবি করেছিলেন, তিনি ছেলে থেকে মেয়ে হওয়ার রূপান্তর প্রক্রিয়ায় মধ্যে আছেন। মেয়েদের প্রতি কোনও আকর্ষণ অনুভব করেন না। তাই তাঁকে এই মামলা থেকে মুক্তি দেওয়া হোক। যদিও ওই ব্যক্তির এই আবেদন খারিজ করে দিয়েছেন বিচারক।

যৌন নির্যাতন করতেন বান্ধবীর বাবা, চোখে আঠা ঢেলে গলার নলি কেটে দিলেন যুবতী আরও পড়ুন

শুধু তাই নয়, ওই ব্যক্তি দাবি করেছেন, তিনি ছোটবেলা থেকে জেন্ডার ডিসফোরিয়ায় আক্রান্ত। যার জেরে তিনি নিজেকে মহিলা বলে মনে করেন। তাই অভিযোগকারিণীর দাবি ঠিক নয়। তাঁর সঙ্গে অভিযোগকারিণীর সম্পর্ক বোনের মতো। তাই তিনি অভিযোগকারিণীর শ্লীলতাহানি করতেই পারেন না। কিন্তু ওই ব্যক্তির এই দাবি মানতে রাজি হননি ৩৩ বছরের অভিযোগকারিণী। এমনকি এই দাবি খারিজ করে দেন বিচারক সুরেশ কুমার কাইত।

ওই ব্যক্তির বিরুদ্ধে ২০১৬-র অক্টোবরে এফআইআর দায়ের করেন নির্যাতিতা। সেই এফআইআর অনুসারে, অভিযোগকারিণী ও অভিযুক্ত উত্তরপ্রদেশের নয়ডায় একই অফিসে কাজ করতেন। কনট প্লেসের একটি পাবে অফিস পার্টিতে অভিযুক্ত তাঁর শ্লীলতাহানি করেছিলেন বলে দাবি করেন ওই মহিলা। এফআইআর-এ তিনি আরও জানিয়েছেন, অফিসে তিনি বিষয়টি নিয়ে বারবার অভিযোগ করলেও বিষয়টিকে গুরুত্ব দেননি অফিস কর্তৃপক্ষ।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন