উৎক্ষেপণের ১১ দিনের মাথায় মহাকাশ থেকে পৃথিবীর ছবি পাঠাল চন্দ্রযান-২। প্রথম পাঠানো এই ছবি ঘিরে উচ্ছ্বসিত বিজ্ঞানীরা। ইন্ডিয়ান স্পেস রিসার্চ অর্গানাইজেশনের (ইসরো) পক্ষ থেকে একাধিক টুইট করে এই সেই ছবিগুলি পোস্ট করা হয়েছে। বিক্রম ল্যান্ডারের বিশেষ ক্যামেরায় তোলা ছবিগুলি পাঠিয়েছে চন্দ্রযান-টু, জানিয়েছে ইসরো। আরও জানানো  হয়েছে, পরিকল্পনা মতো ভারতের চন্দ্র অভিযানে সব কিছু স্বাভাবিক ভাবেই চলছে।

গত ২২ জুলাই অন্ধ্রপ্রদেশের শ্রীহরিকোটায় সতীশ ধওয়ন স্পেস রিসার্চ সেন্টার থেকে চাঁদের উদ্দেশে পাড়ি দেয় চন্দ্রযান-২। জিয়ো সিনক্রোনাইজড লঞ্চ ভেহিক্যাল থেকে বাহুবলী রকেটের পিঠে চড়ে চন্দ্রযান উড়ে যায় তিনটি অংশ— অরবিটর স্যাটেলাইট, বিক্রম ল্যান্ডার এবং প্রজ্ঞান রোভার নিয়ে। তিনটি অংশ মিলিয়ে ওজন ৩৮৫০ কেজি।

এই বিক্রম ল্যান্ডারের সঙ্গেই লাগানো রয়েছে এল-১৪ ক্যামেরা। এই ক্যামেরায় তোলা ছবিগুলিই পাঠিয়েছেন চন্দ্রযান-২। ইসরোর পক্ষ থেকে টুইট করে এবং সংস্থার ওয়েবসাইটে ছবিগুলি পোস্ট করা হয়েছে। সেই সঙ্গেই জানানো হয়েছে, স্বাভাবিক ও পূর্ব নির্ধারিত প্রোগ্রামিং অনুযায়ী চাঁদের দিকে এগিয়ে চলেছে চন্দ্রযান-২।

চন্দ্রযান-২-এর পাঠানো আরও একটি ছবি। সৌজন্যে: ইসরোর ওয়েবসাইট

আরও পডু়ন: পাঁচ অনুপ্রবেশকারীর মৃতদেহ ফেরত নিক পাকিস্তান, বলল ভারতীয় সেনা, নীরব ইসলামাবাদ

আরও পড়ুন: নেতাজিনগরে দম্পতি খুনে বিহার থেকে গ্রেফতার মূল অভিযুক্ত

ইসরো সূত্রে আগেই জানানো হয়েছিল, পৃথিবী এবং চন্দ্রের কক্ষপথে ঘোরার মধ্যে মোট ১৫টি ধাপে শক্তি বাড়ানো হবে। এই ভাবেই ধীরে ধীরে এগিয়ে দেওয়া হবে চাঁদের দিকে। তার পর সব শেষে চাঁদের মাটিতে নামবে বিক্রম ল্যান্ডার। গতকাল অর্থাৎশনিবার বিকেল ৩.১২ মিনিটে এই তৃতীয় ধাপ সম্পূর্ণ হয়েছে, জানিয়েছে ইসরো। চাঁদের মাটিতে পদার্পণ করতে চন্দ্রযানকে পাড়ি দিতে হবে প্রায় চার লক্ষ কিলোমিটার।