• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

কলকাতায় আজ কিছু ক্ষণের জন্য উধাও আমাদের ছায়া!

no shadow day
ছায়া হারিয়ে যায় যখন কলকাতায়! -ফাইল ছবি।

হ্যাঁ, ঘটনাটা আজ, শুক্রবারই ঘটল কলকাতা ও হাওড়ায়। কিছু ক্ষণের জন্য এই দু'টি লাগোয়া শহরে আমার, আপনার কোনও ছায়াই পড়ল না। নিজের ছায়া দেখা গেল শুধুই পায়ের তলায়! সুকুমার রায়ের ছড়ায় যেমন ছায়ার সঙ্গে লড়াই করার কথা বলা হয়েছিল, কিছু ক্ষণের জন্য হলেও, এ দিন সেই লড়াইটা আর করা গেল না কলকাতা ও হাওড়ায়। 

ঘটনাটা শুরু হয় এ দিন বেলা ঠিক ১১টা ৩৬ মিনিটে। ওই সময় থেকে কিছু ক্ষণের জন্য কলকাতার ঠিক মাথার উপর ছিল সূর্য। সামান্য হলেও কোনও কৌণিক অবস্থানে নয়। তার ফলে কিছু ক্ষণের জন্য উলম্ব ভাবে পোঁতা কোনও বস্তুর কোনও ছায়া দেখা যায়নি। ছায়া দেখা যায়নি কোনও ল্যাম্পপোস্ট বা কোনও খুঁটিরও। 

আরও পড়ুন- নিজের ছোড়া ‘বাণ’ থেকে আমাদের বাঁচায় সূর্যই! দেখালেন মেদিনীপুরের সঞ্চিতা

আরও পড়ুন- কোনও অদৃশ্য শক্তি আছে কি ব্রহ্মাণ্ডে? নোবেলজয়ীদের তত্ত্বকে চ্যালেঞ্জ অক্সফোর্ডের বাঙালির

সল্টলেকের পজিশনাল অ্যাস্ট্রোনমি সেন্টারের তরফে জানানো হয়েছে, শুক্রবার ওই সময় ২২.৫ ডিগ্রি উত্তর অক্ষাংশ অতিক্রম করেছে সূর্য। তার ফলে, এ দিন কলকাতায় ওই সময়ে সূর্য ছিল আমাদের ঠিক মাথার উপরে। 

পজিশনাল অ্যাস্ট্রোনমি সেন্টার সূত্রের খবর, প্রতি বছরই ৪ থেকে ৭ জুনের মধ্যে এক বার এবং ৫ থেকে ৭ জুলাইয়ের মধ্যে এক বার এমন ঘটনা ঘটে। সাধারণত, কর্কটক্রান্তি রেখার দক্ষিণে থাকার জন্য প্রতি বছরই ২ বার করে সূর্য কলকাতার ঠিক মাথার উপর দিয়ে যায়। অক্ষাংশ ভেদে এই ঘটনা আলাদা আলাদা দিনে ঘটে। দক্ষিণ ভারতে যেমন এপ্রিল মাসেই ঘটেছে এমন ঘটনা।

পজিশনাল অ্যাস্ট্রোনমি সেন্টারের তরফে এও জানানো হয়েছে, সূর্য তার উত্তরায়ণের পথে ৫ জুন এবং দক্ষিণায়নের ফিরতি পথে ৭ জুলাই কলকাতা-হাওড়ার একই অক্ষাংশে পৌঁছবে। তাই এই দু'টি দিনে বেলা ১১টা ৩৬ মিনিটে সূর্য ঠিক মাথার উপরে সু-বিন্দুতে থাকবে। তাই কারও ছায়াই তার কোনও কোন পাশে পড়বে না। ফলে, কোনও ছায়াই দেখা যাবে না। একই ঘটনা ঘটবে ঝাড়খণ্ডের ঘাটশিলা ও এ রাজ্যের হাসনাবাদে।

অ্যাস্ট্রোনমিক্যাল সোসাইটি অফ ইন্ডিয়ার ওয়েবসাইট জানাচ্ছে, এ বছর পশ্চিমবঙ্গের মধ্যে কয়েকটি স্থানে কিছু ক্ষণের জন্য ছায়াহীন দিনগুলি হল, ৪ জুন ও ৮ জুলাই (ঝাড়গ্রাম, বাগনান, মহেশতলা), ২ জুন ও ১০ জুলাই (তমলুক) এবং ৩ জুন ও ৯ জুলাই (খড়্গপুর, মেদিনীপুর,ডেবরা ও বারুইপুর)।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন