Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৫ জুন ২০২২ ই-পেপার

URL Copied

চিত্র সংবাদ

Harshita Gaur: ‘উফ! কী ছবি!’, ‘মির্জাপুর’ ওয়েব সিরিজের ডিম্পি পণ্ডিতের ফটোশ্যুটে উচ্ছ্বসিত ভক্তরা

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা ১৮ মে ২০২২ ১৩:৪৩
বিগত কয়েক বছরে নেটফ্লিক্স, অ্যামাজন প্রাইম ভিডিয়ো-সহ বিভিন্ন ওটিটি প্ল্যাটফর্মে বিদেশি সিনেমা, ওয়েব সিরিজের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে একের পর এক ভারতীয় ওয়েব সিরিজ মুক্তি পেয়েছে। এর মধ্যে কিছু ওয়েব সিরিজ ভারতের বাইরেও খ্যাতিলাভ করে।

তবে এর যাত্রা শুরু হয় ২০১৮ সালের দিকে। ওই বছর জুলাই মাসে ‘সেক্রেড গেমস্’ ওয়েব সিরিজ মুক্তি পাওয়ার পর ভারতীয় কন্টেন্ট নিয়ে অভাবনীয় প্রত্যাশা জেগে ওঠে দর্শক মহলে।
Advertisement
এর কয়েক মাস পরেই মুক্তি পায় ‘মির্জাপুর’ ওয়েব সিরিজটি। ‘গুড্ডু-বাবলু’ দুই ভাইয়ের জুটি নেট দুনিয়ায় বিপুল সাড়া ফেলেছিল।

মূল কাহিনিতে তাঁদের বোন ছিলেন ‘ডিম্পি’। ওয়েব সিরিজের পার্শ্বচরিত্র হিসাবে হর্ষিতা গৌর খুব নিম্ন মধ্যবিত্ত পরিবারের একটি মেয়ের ভূমিকায় অভিনয় করেছিলেন।
Advertisement
ফলে, দর্শকরা হর্ষিতাকে সাধারণ পোষাকে দেখেই অভ্যস্ত। কিন্তু সম্প্রতি নেটমাধ্যমে হর্ষিতা এমন কিছু ছবি আপলোড করেন যা ভক্তদের নজর কাড়ে।

একটি ছবিতে দেখা যায়, তিনি একটি ‘নটেড’ টপ পরে বসে রয়েছেন। তাঁর শরীরের ঊর্ধ্বাংশ অনেকটাই অনাবৃত।

অন্য একটি ছবিতে দেখা যায়, তাঁর পরনে একটি লাল কোট। কোটের সবকটি বোতাম খোলা।

হর্ষিতা একটি ছবির ক্যাপশনে লিখেছেন, ‘ক্যামেরার লেন্সের সামনে কেউ মিথ্যা বলতে পারে না।’

বর্তমানে তাঁর অ্যাকাউন্টে প্রায় আট লাখ ৭২ হাজার ফলোয়ার রয়েছেন। কিন্তু তিনি ২৫০ জনেরও কম ব্যক্তিকে ফলো করেন।

এঁদের মধ্যে বেশির ভাগই সিনেমা এবং সঙ্গীত জগতের সঙ্গে যুক্ত ভারতীয় অথবা বিদেশি তারকা। এ ছাড়াও বিভিন্ন পত্রিকা এবং নামজাদা ব্র্যান্ডের অ্যাকাউন্ট ফলো করেন তিনি।

জানা যায়, ‘গ্রান্ডিয়ু ইস্টাইল’ এবং ‘ডাউনটাউন মিরর’ পত্রিকার কভারের জন্যেও ফটোশ্যুট করেছেন হর্ষিতা।

হর্ষিতা নিজের ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্টে ভীষণ সক্রিয় থাকেন। ব্যক্তিগত জীবনের বহু ছবি এবং ভিডিয়োই ভাগ করেন নেটমাধ্যমে।

তাঁর ভক্তেরাও কমেন্টের বন্যা বইয়ে দেন প্রায় প্রতিটি ছবিতেই। কেউ বলেন, তাঁকে খুব সুন্দর দেখতে লাগছে।

কেউ কেউ আবার মাঝেমধ্যে অশালীন মন্তব্যও করে বসেন। কিন্তু হর্ষিতার প্রতিটি ছবিই সকলের পছন্দের তালিকায় রয়েছে।

অভিনয়ের পাশাপাশি ফটোশ্যুটের মাধ্যমেও ভক্তদের মনে জায়গা করে নিচ্ছেন ‘মির্জাপুর’-এর ডিম্পি।

নয়াদিল্লির এক চিকিৎসক পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন হর্ষিতা। নয়ডার এক ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজে পড়াশোনা তাঁর।

এর পরেই মডেলিং জগতে পা রাখেন তিনি। ২০১৩ সালে ‘সদ্দা হক’ টিভি সিরিয়ালে মুখ্য চরিত্রে অভিনয় করেন হর্ষিতা।

এ ছাড়াও বিভিন্ন মিউজিক ভিডিয়ো, সিনেমা এবং ওয়েব সিরিজেও দেখা গিয়েছে তাঁকে। এমনকি, নামী ব্র্যান্ডের বি়জ্ঞাপনেও মুখ দেখা যায় তাঁর।

 বর্তমানে দর্শকরা সকলেই ‘মির্জাপুর’ ওয়েব সিরিজের তৃতীয় পর্ব মুক্তি পাওয়ার অপেক্ষায়। সম্ভবত, হর্ষিতাকে অন্য রকম ভূমিকায় দেখা যেতে পারে ।