Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

৩০ জুন ২০২২ ই-পেপার

URL Copied

চিত্র সংবাদ

Pallavi Dey Death Mystry: প্রেম-লিভ ইন-মৃত্যু, হাওড়ার মেয়ে মিষ্টুর এমন পরিণতি হল কী ভাবে

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা ১৫ মে ২০২২ ১৫:০৩
মৃত্যুর ১৭ ঘণ্টা আগেও ইনস্টাগ্রামে রিল ভিডিয়ো পোস্ট করেছিলেন টেলি অভিনত্রী পল্লবী দে। শেষ কয়েক ঘণ্টায় কী এমন ঘটে গেল যে আত্মহত্যা করতে হল টলিউডের উঠতি অভিনেত্রীকে? বাঙুর হাসপাতালের সামনে জড়ো হওয়া টলিউড অভিনেতাদের ভিড়ে আপাতত এই প্রশ্নটিই ঘুরে ফিরে আসছে।

রবিবার সকাল ৯টা ৫০ মিনিটে পল্লবীকে তাঁর গড়ফার ফ্ল্যাটে ঝুলন্ত অবস্থায় উদ্ধার করে পুলিশ। তাঁর গলায় জড়ানো ছিল বিছানার চাদর। তবে ঘরে কোনও সুইসাইড নোট খুঁজে পায়নি পুলিশ।
Advertisement
পল্লবী ‘মন মানে না’ নামে একটি ধারাবাহিকের মুখ্য চরিত্রে অভিনয় করছিলেন। রবিবার শ্যুটিংয়ে যাওয়ারও কথা ছিল তাঁর।

সহ-অভিনেতা ভরত কল জানিয়েছেন, এক দিন আগেও তাঁরা একসঙ্গে শ্যুটিং করেছেন। তখনও বেশ হাসিখুশিই ছিলেন অভিনেত্রী।
Advertisement
ভরতের মতোই পল্লবীর সহকর্মীরা জানিয়েছেন, বরাবরই প্রাণবন্ত ছিলেন পল্লবী। সহ অভিনেতাদের নিয়ে ইনস্টাগ্রামে প্রায়শই রিল বানাতেন পল্লবী। শেষ দিন শ্যুটিংয়েও সবার সঙ্গে হেসেই কথা বলতে দেখা গিয়েছে তাঁকে।

ডাকনাম মিষ্টু। বাড়ি হাওড়ার সাঁতরাগাছিতে। তবে সেখান থেকে মাস কয়েক আগেই গড়ফার একটি আবাসনে চলে এসেছিলেন পল্লবী।

অভিনেত্রীর ঘনিষ্ঠ বন্ধুরা জানিয়েছেন, এক বন্ধুর সঙ্গে লিভ-ইন সম্পর্কে ছিলেন পল্লবী। হাওড়ার বাড়ি থেকে গড়ফার ফ্ল্যাটে চলে আসার কারণ সম্ভবত সেটাই।

পুলিশ প্রাথমিক তদন্তে জেনেছে, পল্লবীর সঙ্গে যে বন্ধু গড়ফার ওই ফ্ল্যাটে থাকতেন তাঁর সঙ্গে মৃ্ত্যুর আগের দিন রাতে কথা কাটাকাটি হয়েছিল অভিনেত্রীর।

পুলিশ এ কথাও জেনেছে, পল্লবীর মৃত্যুর সময়ে বাড়ির বাইরে ছিলেন তাঁর বন্ধু।

পুলিশকে অভিনেত্রীর বন্ধু জানিয়েছেন, বাড়ি ফিরে ঘরের দরজা ভেঙে পল্লবীকে ঝুলন্ত অবস্থায় উদ্ধার করেন তিনি। তারপরই পুলিশকে খবর দেন। পুলিশ যদিও পল্লবীর ঘর থেকে কোনও সুইসাইড নোট পায়নি।

প্রসঙ্গত, পল্লবীর অভিনয় জীবন খুব বেশিদিনের নয়। পর্দায় তাঁর প্রথম বড় চরিত্র ‘রেশম ঝাঁপি’ ধারাবাহিকে। তবে নায়িকা হিসেবে বড় সুযোগ, ‘আমি সিরাজের বেগম’-এ। ওই ধারাবাহিকে পল্লবীকে দেখা গিয়েছিল সিরাজের স্ত্রী লুৎফা-র চরিত্রে।

‘আমি সিরাজের বেগম’ ধারাবাহিকে পল্লবীর বিপরীতে ছিলেন শন বন্দ্যোপাধ্যায়। অভিনেত্রী সুপ্রিয়ার নাতি শনের সঙ্গে পল্লবীর রসায়ন জনপ্রিয় হয়েছিল। টলিউডে কাঙ্ক্ষিত ‘ব্রেক’ পেয়ে গিয়েছিলেন পল্লবী। আসতে শুরু করেছিল গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে অভিনয়ের প্রস্তাবও।

ধীরে ধীরে টেলিভিশন জগতের জনপ্রিয় মুখ হয়ে উঠতে শুরু করেছিলেন পল্লবী। ‘কুঞ্জছায়া’ ধারাবাহিকে গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে অভিনয়ের পর ফের প্রধান চরিত্রে অভিনয়ের সুযোগ আসে তাঁর কাছে। ‘মন মানে না’ ধারাবাহিকে আবার নায়িকার চরিত্র পান তিনি।

বৃহস্পতিবার পর্যন্ত সেই ধারাবাহিকের শ্যুটিং করেছেন পল্লবী।

গত ৪৮ ঘণ্টায় তিনি নেট মাধ্যমেও একাধিক পোস্ট করেছেন।

অভিনেত্রীর সহকর্মীরা প্রশ্ন তুলেছেন, হাসিখুশি, প্রাণবন্ত একটি মেয়ে হঠাৎ আত্মহত্যার সিদ্ধান্ত নিল কেন?  তা অবিলম্বে তদন্ত করে বের করুক পুলিশ।

রবিবার অবশ্য পুলিশ পল্লবীর ওই বন্ধুকে থানায় নিয়ে এসে জিজ্ঞাসাবাদ করা শুরু করেছে।