×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১৯ এপ্রিল ২০২১ ই-পেপার

দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে সোভিয়েত সেনার হাতে খুন ৭ পোলিশ নান-এর কঙ্কাল উদ্ধার ৭৭ বছর পর

সংবাদ সংস্থা
ওয়ারশ, পোল্যান্ড ০৬ মার্চ ২০২১ ১৪:২১
সোভিয়েত সেনার হাতে খুন হওয়া ৭ পোলিশ নান-এর এক জনের কঙ্কাল। ছবি- টুইটারের সৌজন্যে।

সোভিয়েত সেনার হাতে খুন হওয়া ৭ পোলিশ নান-এর এক জনের কঙ্কাল। ছবি- টুইটারের সৌজন্যে।

দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের শেষ পর্বে যুদ্ধবিধ্বস্ত পোল্যান্ডে ঢুকে সাবেক সোভিয়েত ইউনিয়নের সেনাবাহিনী যে ৭ জন ক্যাথলিক ‘নান’-কে নির্মম অত্যাচারের পর খুন করেছিল, তাঁদের সকলেরই কঙ্কাল খুঁজে পেলেন প্রত্নতাত্ত্বিকরা। ‘পোলিশ ইনস্টিটিউট অব ন্যাশনাল রিমেমব্রান্স (আইপিএন)’-এর তরফে শনিবার একটি বিবৃতিতে এই খবর দেওয়া হয়েছে।

১৯৪৪ সালে পোল্যান্ডের ওই ৭ জন ক্যাথলিক নান-কে খুন করেছিল সোভিয়েত সেনাবাহিনী।

আইপিএন-এর বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, মাটির নীচে কোথায় ওই ক্যাথলিক নানদের দেহগুলি পুঁতে রাখা হয়েছিল তার জন্য কয়েক বছর ধরেই তন্নতন্ন তল্লাশি চালাচ্ছিলেন প্রত্নতাত্ত্বিকরা। মোটামুটি নিশ্চিত হয়ে গত বছর জুলাইয়ে প্রত্নতাত্ত্বিকরা প্রথম খনন কাজ চালান পোল্যান্ডের গদাঙ্কস এলাকায়। সেখানে তাঁরা সিস্টার চ্যারিটাইনা (নান হওয়ার আগে যাঁর নাম ছিল জাদউইগা ফাহ্‌ল)-র কঙ্কালের হদিশ পান।

Advertisement
এখান থেকেই উদ্ধার হয় তিন পোলিশ নান-এর কঙ্কাল। ছবি- টুইটারের সৌজন্যে।

এখান থেকেই উদ্ধার হয় তিন পোলিশ নান-এর কঙ্কাল। ছবি- টুইটারের সৌজন্যে।


তার পর গত অক্টোবরে প্রত্নতাত্ত্বিকরা খনন কাজ চালান ওলস্‌ঝটাইন এলাকায়। সেখান থেকে আরও ৩টি কঙ্কালের হদিশ মেলে। পরীক্ষানিরীক্ষার পর প্রত্নতাত্ত্বিকরা নিশ্চিত হয়েছেন ওই ৩টি কঙ্কালের একটি পোলিশ নান সিস্টার জেনেরোসার। নান হওয়ার আগে যাঁর নাম ছিল মারিয়া বোল্‌জ। অন্য দু’টি কঙ্কালের একটি সিস্টার ক্রিজতোফোরা (নান হওয়ার আগে যাঁর নাম ছিল মার্টা ক্লোমফাস), অন্যটি সিস্টার লাইবেরিয়া (নান হওয়ার আগে যাঁর নাম ছিল মারিয়া ডমনিক)-র। এই ৩ জনই ওলস্‌ঝটাইন সেন্ট মেরিজ হসপিটালের নার্স ছিলেন।

বাকি ৪ জনের কঙ্কাল কোথায় রয়েছে তা খুঁজে বার করতে বিস্তর ঘাম ঝরাতে হয়েছে প্রত্নতাত্ত্ববিদদের। সেই কঙ্কালগুলির খোঁজ পেতে ওরনেটায় ২১৫ বর্গ ফুট এলাকা জুড়ে খনন কাজ চালানো হয়। শেষ পর্যন্ত গত ডিসেম্বরে সেখান থেকে বাকি ৩ নান-এর কঙ্কাল উদ্ধার করা হয়। সেই কঙ্কালগুলি ছিল সিস্টার রোলান্ডা (মারিয়া আব্রাহাম), সিস্টার গানহিল্ডা (ডোরোটা স্টেফেন) এবং সিস্টার বোনা (আন্না পেস্তকা)-র।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে পরাজয় আসন্ন বুঝে যখন জার্মানরা পোল্যান্ড থেকে পালাতে শুরু করেছিল, তখনই পোল্যান্ডে ঢুকে পড়ে নির্মম অত্যাচার চালিয়েছিল সোভিয়েত সেনাবাহিনী। সেই সময় তাদের আক্রমণের লক্ষ্য হয়েছিলেন মূলত পোলিশ নান-রা।

Advertisement