• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

২০০-২৫০ বল খেলতেন ধোনি, ফাঁস চাওলার

IPL
চর্চায়: মার্চে সিএসকের প্রস্তুতি শিবেরে ধোনির অনুশীলন। টুইটার

বিশ্বকাপের পরে দীর্ঘ দিন ক্রিকেটের সঙ্গে সম্পর্ক রাখেননি তিনি। কিন্তু মহেন্দ্র সিংহ ধোনি যখন নেটে ফেরেন, তাঁর ব্যাটিংয়ে কোনও জড়তা দেখতে পাননি আইপিএল দল চেন্নাই সুপার কিংসের এক সতীর্থ।

সেই সতীর্থ কলকাতা নাইট রাইডার্স থেকে এ বারই চেন্নাইয়ে যাওয়া পীযূষ চাওলা। লেগস্পিনারের কথায়, এতটাই স্বচ্ছন্দ ছিলেন ধোনি যে, তাঁর মনে হয়েছিল, পুরোপুরি বিশ্রামে নয়, রাঁচীর বাড়িতে হয়তো নিয়মিত ভাবে ব্যাটিং অনুশীলন করে গিয়েছেন প্রাক্তন অধিনায়ক।   

আইপিএলের জন্য চেন্নাই সুপার কিংস প্রস্তুতি শুরু করে দিয়েছিল জোরকদমে। করোনার প্রকোপ বাড়তে থাকায় ১৪ মার্চ বন্ধ হয়ে যায় চেন্নাইয়ের শিবির। এই ১৩ দিনের মধ্যেই একটি প্রস্তুতি ম্যাচে সেঞ্চুরিও করেন ধোনি। ৯১ বলে ১২৩ রানের সেই ঝোড়ো ইনিংস দেখে নাকি অনেকেই নিশ্চিত হন,  ধোনি কিছুই হারাননি। 

আকাশ চোপড়ার ইউটিউব চ্যানেলে সাক্ষাৎকার দিতে এসে পীযূষ বলেছেন, ‘‘রাঁচীতে নিশ্চয়ই অনুশীলন করত মাহিভাই। না হলে এত দিন পরেও সামান্য জড়তা লক্ষ্য করা যায়নি ওর মধ্যে। নেটে ব্যাটিং করতে যাওয়ার পরে প্রথম পাঁচ থেকে ছ’টি বল দেখে নিত। তার পরেই শুরু হত আগের মতোই ওর বড় শট নেওয়া।’’

নেটে কত ক্ষণ ব্যাট করতেন ধোনি? পীযূষের উত্তর, ‘‘প্রাক-মরসুম প্রস্তুতিতে বোলারের সংখ্যাই ছিল বেশি। প্রত্যেক ব্যাটসম্যানই টানা দুই থেকে আড়াই ঘণ্টা ব্যাট করত। তার মানে ২০০ থেকে ২৫০ বল তো খেলতই। একেবারে সাবলীল শট নিত মাহিভাই। মনেই হত না, ক্রিকেট থেকে এত দিন বাইরে ছিল।’’ চেন্নাইয়ের প্রস্তুতিতে উপস্থিত ছিলেন মুরলী বিজয়, সুরেশ রায়না,  অম্বাতি রায়ডুরা।

পীযূষের দেখা সেরা অধিনায়ক যে ধোনিই, তা আরও এক বার বলে দিয়েছেন তিনি। ‘‘বড় অধিনায়কেরা কখনও বেশি কথা বলে না। যেটুকু বলবে, সেটা মন দিয়ে শুনলেই উপকার হবে। মাহিভাই  ঠিক সে রকমই।’’

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন