• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

কোভিড ভ্যাকসিনের কার্যকারিতা নিয়ে প্রশ্ন তুলে ট্রোলড হরভজন

Harbhajan
অস্বস্তিতে হরভজন। —ফাইল ছবি।

কোভিড ভ্যাকসিনের সত্যিই কি দরকার আছে ভারতে? মজার ভঙ্গিতে এমনই টুইট করেছিলেন হরভজন সিংহ। আর তা নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় রীতিমতো ট্রোলড হলেন তিনি।

হরভজন টুইটে লিখেছিলেন, কোভিডে ভারতে ভ্যাকসিন ছাড়াই সুস্থতার হার ৯৩.৬ শতাংশ। সেখানে ভ্যাকসিনের কার্যকারিতা ফাইজার ও বায়োটেকে ৯৪ শতাংশ, মডারেনায় ৯৪.৫ শতাংশ, অক্সফোর্ডের ক্ষেত্রে আবার ৯০ শতাংশ। এর পরই ভারতের এই প্রাক্তন স্পিনারের প্রশ্ন, ‘তা হলে কি সত্যিই ভারতে ভ্যাকসিনের প্রয়োজনীয়তা রয়েছে’? সঙ্গে চিন্তা করার ইমোজি দিয়েছিলেন তিনি। ভাজ্জির টুইট লাইক করেছিলেন ক্রিকেটার মনোজ তিওয়ারি।

এই পোস্ট ভাল ভাবে নেননি নেটাগরিকরা। একজন লিখেছেন, ‘এমন বোকার মতো পোস্ট করবেন না। যদি প্লেন ক্র্যাশ করার ৫ শতাংশও সম্ভাবনা থাকে, তা হলে কি আপনি সেই বিমানে উঠবেন? ৯৩.৬ শতাংশ মানুষ সেরে উঠছেন মানে ৬.৪ শতাংশ মানুষের অবস্থা উদ্বেগজনক বা তাঁরা মৃত। এখন আমাদের দেশের জনসংখ্যার ৬.৪ শতাংশ মানে কত, তা অঙ্ক করে বের করুন। টুইট করার আগে বিজ্ঞান নিয়ে পড়াশোনা করুন’।

আরও পড়ুন: কোহালি দেশে ফিরলে শুভমনকে খেলানো হোক, বলছেন আজহার​

আরও পড়ুন: লকডাউন ধারালো করেছে নটরাজনকে

একজন লিখেছেন, ‘যদি ভারতীয় দলের প্রত্যেকেই ম্যান অফ দ্য ম্যাচের পুরস্কার পায়, তা হলে ভারতের প্রত্যেক ম্যাচ জেতা উচিত। কিন্তু সেভাবে তো ঘটে না। পরিসংখ্যান বিপথে চালিত করতে পারে। নিজেদের বোকা বানানোয় সাহায্য করতে পারে’। আর একজন লিখেছেন, ‘৯৩.৬ শতাংশ তো ঠিক আছে, কিন্তু বাকি ৬.৪ শতাংশ তো ২০২১ সালের জন্য নির্বাচিতই হবে না। ভ্যাকসিন অতি আবশ্যক। এটা ক্রিকেট ম্যাচ নয় যে, রিভিউ নেওয়া যাবে। এখানে আউট হওয়া মানে একেবারে চলে যাওয়া।’ 

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন