• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

তাই জু-কে হারিয়ে বড় চমক সিন্ধুর

sindhu
সফল: মরসুম শেষে দুরন্ত ফর্মে পিভি সিন্ধু। ফাইল চিত্র

অবশেষে বিশ্বের এক নম্বর তাই জু ইংয়ের বিরুদ্ধে জিতলেন পুসারলা বেঙ্কট সিন্ধু। রিয়ো অলিম্পিক্সে রুপোজয়ী সিন্ধু এ বার চিনা তাইপেইয়ের প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে জয় পেলেন ১৪-২১, ২১-১৬, ২১-১৮ ফলে। এই জয়ে পুল্লেলা গোপীচন্দের ছাত্রীর মরসুমের শেষ প্রতিযোগিতা এটিপি টুর ফাইনালসের নক-আউটে খেলার সম্ভাবনা উজ্জ্বল হল।  

চিনের গুয়াংঝৌয়ে এক ঘণ্টার একটু বেশি সময়ের খেলায় প্রথম গেম হারার পরেও দারুণ ভাবে ফিরে আসেন সিন্ধু। তাও নির্ণায়ক গেমে ৬-১১ পিছিয়ে থেকে। রিয়োর পরে এই প্রথম তিনি হারালেন তাই জু-কে। বৃহস্পতিবার প্রথম গেমটি মাত্র ১৬ মিনিটে জিতে নেন তাই জু। বিপক্ষের ভুলের সুযোগ নিয়ে কয়েকটি পয়েন্ট তোলা ছাড়া শুরুর গেমে বিশেষ কিছুই করতে পারেননি সিন্ধু। দ্বিতীয় গেমে তাই জু প্রথম থেকেই কোর্টের নানা প্রান্তে শাটল মারছিলেন। সিন্ধুকে দ্রুত ক্লান্ত করে দেওয়াই তাঁর লক্ষ্য ছিল। একই সঙ্গে চিনা তাইপেইয়ের প্রতিপক্ষ একের পর এক ভুলও করতে থাকেন। মাঝখানে বড় র‌্যালিও হয়। সিন্ধু ক্রমশ ভাল খেলতে থাকেন এবং ১০-৪ এগিয়ে যান। তার পর থেকে নিখুঁত রিটার্ন করে ভারতীয় তারকা মোটামুটি ৫ থেকে ৬ পয়েন্টের ব্যবধান ধরে রাখতে সফল হন। শেষ পর্যন্ত গেমও জিতে ফল ১-১ করে ফেলেন। 

নির্ণায়ক গেমে তেড়েফুঁড়ে শুরু করেন তাই জু। শুরুতেই ৩-০ এগিয়ে যান। সিন্ধু ক্রমশ লড়াইয়ে ফেরায় ব্যবধান কমে একসময় ফল দাঁড়ায় তাই জু-র পক্ষে ৮-৫। তার পরে ৬-১১ থেকে ১১-১২ পিছিয়ে থাকা অবস্থায় প্রতিপক্ষের টানা তিনটি ভুলের সুযোগ নিয়ে এ বার এগিয়ে যান গোপীচন্দের ছাত্রীই। একসময় ফল দাঁড়ায় সিন্ধুর পক্ষে ১৬-১৩। এখান থেকে শেষ গেমে তাই জু আরও পাঁচটি পয়েন্ট জিতলেও সিন্ধু কিন্তু নিজের পক্ষে ব্যবধানটা ধরে রেখেছিলেন। তাই শেষ পর্যন্ত গেম ও ম্যাচ জিতে নিতেও তাঁর অসুবিধে হয়নি। বৃহস্পতিবার পুরুষদের সিঙ্গলসে বিশ্বের ১৪ নম্বর সমীর বর্মাও জয় পেয়েছেন বিশ্বের দশ নম্বর সুগিয়ার্তোর বিরুদ্ধে। দাপট নিয়ে খেলে সমীর ৪০ মিনিটে জিতলেন ২১-১৬, ২১-৭ ফলে। ভারতীয় তারকা অবশ্য গ্রুপে প্রথম ম্যাচে হেরে যান বিশ্বের এক নম্বর এবং বিশ্বচ্যাম্পিয়ন কেন্তো মোমোতার কাছে।  

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন