মহেন্দ্র সিংহ ধোনির উত্তরসূরি হিসেবে তাঁকে দেখা হলেও ঋষভ পন্থ জানিয়ে দিলেন, পূর্বসূরির সঙ্গে তাঁর তুলনা হয় না। প্রাক্তন ভারত অধিনায়ককে প্রচণ্ড শ্রদ্ধা করেন তিনি। ধোনির জায়গা পূরণ করার চেয়েও ঋষভের লক্ষ্য নিজেকে উন্নত করা। ১৫ সেপ্টেম্বর থেকে দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে টি-টোয়েন্টি সিরিজ শুরু হচ্ছে। সেখানে ফের নিজেকে প্রমাণ করতে মরিয়া দিল্লির তরুণ।

বুধবার কলকাতায় একটি অনুষ্ঠানে এসে ভারতীয় উইকেটকিপার বলেন, ‘‘দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজের প্রস্তুতি যথেষ্ট হয়েছে। আশা করছি তার ফল আপনারা মাঠেই দেখতে পাবেন।’’ 

বরাবর ভয়ডরহীন মানসিকতায় বিশ্বাসী ঋষভ। বিপক্ষে কাগিসো রাবাডা, অ্যানরিখ নর্তজ়ের মতো বোলারদের সামলানো খুব একটা সহজ নয়। কিন্তু ঋষভ ভয় পাচ্ছেন না। বলছিলেন, ‘‘দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে আমরা একটু এগিয়ে থাকব। কারণ আমরা ঘরের মাঠে খেলার সুবিধা পাব। দেখা যাক এ বার সিরিজে কী হয়।’’

ওয়েস্ট ইন্ডিজে টেস্ট সিরিজে বিপক্ষকে ভারত হোয়াইটওয়াশ করলেও ঋষভের খুব একটা বড় অবদান ছিল না। তিন ইনিংসে মোট ৫৮ রান করেন তিনি। ওয়ান ডে সিরিজেও দু’বার ব্যাট করার সুযোগ পেয়ে একটি ম্যাচে ২০ ও অন্যটিতে শূন্য রান করে ফিরতে হয় তাঁকে। দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজ শুরু হওয়ার আগে এই পারফরম্যান্সে আদৌ কি তিনি খুশি? ঋষভের উত্তর, ‘‘দল ভাল খেললেই আমি খুশি। ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে প্রচণ্ড ভাল ক্রিকেট খেলেছি আমরা। আশা করি, সেই ছন্দ ধরে রাখব দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধেও। তবে দলের জয়ের পিছনে আরও বেশি করে অবদান রাখতে চাই।’’

ঋষভের সাম্প্রতিক পারফরম্যান্সের ভিত্তিতে বিচার করা না হলেও তাঁকেই ভবিষ্যতের মুখ হিসেবে দেখা হচ্ছে। সে বিষয়ে ভারতীয় কিপারের কী মত? ঋষভ বলে গেলেন, ‘‘ধোনি ভাইকে আমি খুব ভালবাসি। ওকে প্রতিদ্বন্দ্বী হিসেবে দেখতে চাই না।’’