এশিয়ার প্রথম দেশ হিসেবে সদ্য অস্ট্রেলিয়ায় টেস্ট সিরিজ জিতেছে ভারত। বিরাট কোহালির দলের এই সাফল্য নিয়ে ক্রিকেটমহল এখনও আলোড়িত। ৭১ বছরের খরা কাটিয়ে ১১ সফরের ব্যর্থতার পরে এসেছে এই জয়। সেই কারণেই তা এত মধুর হয়ে উঠছে।

ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহালির কাছে এই টেস্ট সিরিজ জয় কেরিয়ারের সবচেয়ে বড় সাফল্য হিসেবে বিবেচিত হচ্ছে। প্রধান কোচ রবি শাস্ত্রীর কাছে এই সাফল্য ১৯৮৩ সালে কপিল দেবের নেতৃত্বে বিশ্বকাপ জেতার চেয়েও এগিয়ে থাকছে। তবে ক্রিকেটমহলে কেউ কেউ এই দাবির সঙ্গে একমত নন। ভারতীয় ক্রিকেটের ইতিহাসে এই জয়কে সর্বকালের সেরা সাফল্য মানতে আপত্তি রয়েছে তাদের। এই তালিকায় রয়েছেন সঞ্জয় মঞ্জরেকরও।

তাঁর মতে, বিদেশে টেস্ট সিরিজ জেতার নিরিখে বর্ডার-গাওস্কর ট্রফি জেতা চতুর্থ সেরা সাফল্য। এক ক্রিকেট ওয়েবসাইটে তিনি বলেছেন, “মাথায় রাখতে হবে অস্ট্রেলিয়ার ব্যাটিং লাইন আপ রীতিমতো দুর্বল ছিল। সিরিজ শুরুর আগে থেকেই ভারতের জয়ের সম্ভাবনা ছিল। কিন্তু ভারত যেহেতু ভাল দল নিয়েও দক্ষিণ আফ্রিকা ও ইংল্যান্ডে জেতেনি, তাই প্রশ্নচিহ্ন ছিল। তাই আমার মতে এটা থাকবে চার নম্বরে। প্রথম টেস্টে চার উইকেট পড়ার পর চেতেশ্বর পূজারা যদি সেঞ্চুরি না করত, তাহলে হাড্ডাহাড্ডি লড়াই হত সিরিজে।”

আরও পড়ুন: ভয়ঙ্কর বুমরাই দু’দলের মধ্যে আসল পার্থক্য

আরও পড়ুন: সিরিজ জিতে মাঠেই ‘বেবিসিটার ডান্স’ ঋষভের, দেখুন ভিডিয়ো

তাঁর মতে ১৯৭১ সালে ইংল্যান্ডে ভারতের তিন টেস্টের সিরিজ ১-০ জেতা বিদেশে সেরা সাফল্য। দুইয়ে থাকবে ১৯৭০-৭১ মরসুমে ওয়েস্ট ইন্ডিজে পাঁচ টেস্টের সিরিজ ১-০ জেতা। ১৯৮৬ সালে ইংল্যান্ডে তিন টেস্টের সিরিজ ২-০ জেতাকে তিনি রেখেছেন তিন নম্বরে। আর ২০০৩-০৪ মরসুমে পাকিস্তানে ভারতের তিন টেস্টের সিরিজ ২-১ জেতাকে মঞ্জরেকর রেখেছেন পাঁচে।

কেন অজিত ওয়াড়েকরের নেতৃত্বে ১৯৭১ সালে ইংল্যান্ডে টেস্ট সিরিজ জেতা শীর্ষে, ব্যাখ্যা করেছেন মুম্বইকর। তাঁর মতে, “তিন টেস্টের প্রথম দুটো ড্র হয়েছিল। প্রথম টেস্টে হাতে দুই উইকেট নিয়ে ৩০ রান করতে হত ভারতকে। জিততেও পারত, হারতেও পারত ভারত। কিন্তু দারুণ লড়াই করেছিল ভারত। দ্বিতীয় টেস্টে ভাগ্যের সহায়তা মিলেছিল। আর ওভালে শেষ টেস্টে চন্দ্রশেখরের ম্যাজিক স্পেল তফাত গড়ে দিয়েছিল। ১৭০ রান তাড়া করতে হত ইংল্যান্ডকে। মারাত্মক চাপ ছিল। ডেভিড-গোলিয়াথের মতো পরিস্থিতি ছিল। আর সেই কারণেই এটা এক নম্বরে থাকবে।”

(আইসিসি বিশ্বকাপ হোক বা আইপিএল ,টেস্ট ক্রিকেট, ওয়ান ডে কিংবা টি-টোয়েন্টি। ক্রিকেট খেলার সব আপডেট আমাদের খেলা বিভাগে।)