Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৫ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

ইতিহাসের সামনে বেঙ্গালুরু এফসি

এই তো সেদিনের কথা। ভারতীয় ফুটবলে সবে পা রেখেছিল নতুন দল বেঙ্গালুরু এফসি। আর্বির্ভাবেই আই লিগ চ্যাম্পিয়ন। পরের বছর ফেডারেশন কাপ চ্যাম্পিয়ন, আ

সংবাদ সংস্থা
১৮ অক্টোবর ২০১৬ ২২:৩৯
ঐতিহাসিক ম্যাচে খেলতে নামার আগে অনুশীলনে সুনীল ছেত্রীরা। ছবি: ফেসবুক।

ঐতিহাসিক ম্যাচে খেলতে নামার আগে অনুশীলনে সুনীল ছেত্রীরা। ছবি: ফেসবুক।

এই তো সেদিনের কথা। ভারতীয় ফুটবলে সবে পা রেখেছিল নতুন দল বেঙ্গালুরু এফসি। আর্বির্ভাবেই আই লিগ চ্যাম্পিয়ন। পরের বছর ফেডারেশন কাপ চ্যাম্পিয়ন, আই লিগে রানার্স। গত মরসুমে আবার আই লিগ চ্যাম্পিয়ন। আর এ বার ভারতীয় ফুটবলে ইতিহাসের সামনে দাঁড়িয়ে বেঙ্গালুরু এফসি।

বুধবার ঘরের মাঠে সেই ইতিহাস রচনা করতে পারবে কি না তা সময়ই বলবে কিন্তু বেঙ্গালুরুকে সমর্থন করতে ফুটছে ফুটবলের ভারত। যখন বেঙ্গালুরুর কান্তিরাভা স্টেডিয়ামে সুনীল ছেত্রীরা মুখোমুখি হবে মালয়েশিয়ার দল জহর দারুল তাজিমের। অ্যাওয়ে ম্যাচে ১-১ ড্র করে একটি অ্যাওয়ে গোল নিয়ে একটু হলেও মানসিকভাবে এগিয়ে রয়েছে বেঙ্গালুরু। আর এই ম্যাচ ড্র করলেই এএফসি কাপের ফাইনালে চলে যাবে বেঙ্গালুরু এফসি। কোনও ভারতীয় ক্লাবের জন্য এই প্রথম। এর আগে সেমিফাইনালে যাওয়ার রেকর্ড রয়েছে ডেম্পো ও ইস্টবেঙ্গলের। যদিও অতি আত্মবিশ্বাসে ভুগতে রাজি নন অধিনায়ক সুনীল ছেত্রী। বলেন, ‘‘ওরা খুব শক্তিশালী দল। কিন্তু আমরা মুখিয়ে রয়েছি। কিন্তু এই মাঠে আমরা অন্য শক্তি পাই।’’

দেশের হয়ে সর্বোচ্চ গোল করেছেন। আই লিগ,ফেডারেশন কাপ সবই রয়েছে তাঁর ঝুলিতে। এ বার ভারতের অধিনায়কের সামনে নতুন রেকর্ডের হাতছানি। যদি বেঙ্গালুরুর প্রতিপক্ষ তাদের দু’জন সেরা প্লেয়ারকে ছাড়াই খেলতে এসেছে। জুয়ান মার্টিন লুসেরো ও পেরেইরা দিয়াজ খেলতে পারবেন না কার্ডের জন্য। ২০ হাজারের গ্যালারি ভরে যাবে সুনীলদের সমর্থনে। মালয়েশিয়ার ক্লাবের কাছে এটাই সব থেকে বড় চ্যালেঞ্জ। সঙ্গে প্রায় ধসে পড়়া ভারতীয় ফুটবলের জন্যও ভাল বিজ্ঞাপন বেঙ্গালুরুর সাফল্য।

Advertisement

আরও খবর

ইতিহাসের সামনে দাঁড়িয়ে দেশের সমর্থন চান সুনীল

আরও পড়ুন

Advertisement