Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

১১ অগস্ট ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

গ্রেগের বিরুদ্ধে লক্ষ্মণকে তো কিছু বলিনি! অস্বীকার করলেন ব্লিউয়েট

২০০৫ থেকে ২০০৭ সাল পর্যন্ত জাতীয় দলের কোচ ছিলেন গ্রেগ চ্যাপেল। অতীতে তাঁর সঙ্গে বিতর্কে জড়িয়েছেন সচিন, সৌরভও। এ বার জড়ালেন লক্ষ্মণ।

নিজস্ব প্রতিবেদন
২১ নভেম্বর ২০১৮ ১৬:৩৬
Save
Something isn't right! Please refresh.
গ্রেগ চ্যাপেলকে নিয়ে বিতর্কে জড়ালেন লক্ষ্মণ ও ব্লিউয়েট।

গ্রেগ চ্যাপেলকে নিয়ে বিতর্কে জড়ালেন লক্ষ্মণ ও ব্লিউয়েট।

Popup Close

ভারতীয় ক্রিকেটের সঙ্গে জড়িত নেই অনেকদিন। তা হলেও গ্রেগ চ্যাপেলকে নিয়ে বিতর্ক থামার নয়। তাঁকে নিয়ে ফের শুরু হল বিতর্ক। যার কেন্দ্রে ভিভিএস লক্ষ্মণের আত্মজীবনী।

২০০৫ থেকে ২০০৭ সাল পর্যন্ত জাতীয় দলের কোচ ছিলেন ইয়ান চ্যাপেলের ভাই। কোচিং পদ্ধতি নিয়ে অতীতে গ্রেগ চ্যাপেলের সঙ্গে বিতর্কে জড়িয়েছেন সচিন তেন্ডুলকর, সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের মতো ভারতীয় ক্রিকেটের কিংবদন্তিরা। এ বার মুখ খুলেছেল লক্ষ্মণ।

আত্মজীবনী ‘২৮১ অ্যান্ড বিয়ন্ড’-এ লক্ষ্ণণ যে সব বিশেষণে গ্রেগকে ভূষিত করেছেন, তা হল ‘অসভ্য, একগুঁয়ে, অনমনীয়।’ তাতেই তিনি লিখেছেন, “২০০৫ সালের গ্রীষ্মে আমি ইংল্যান্ডে ল্যাশিংসের হয়ে ক্লাব ক্রিকেট খেলতে গিয়েছিলাম। সেখানে আমার সতীর্থ ছিল গ্রেগ ব্লিউয়েট। ওই আমাকে গ্রেগের সম্পর্কে সাবধান করে দিয়েছিল। এর আগে সাউথ অস্ট্রেলিয়ার কোচ ছিল চ্যাপেল। ব্লিউয়েট তখন চ্যাপেলের কোচিংয়ে খেলেছিল। ব্লিউয়েট আমায় বলেছিল যে কোচ থাকাকালীন চ্যাপেল দলে অশান্তি তৈরি করেছিল। আমি তখন ওঁকে খুব একটা গুরুত্ব দিইনি। ভেবেছিলাম, রাগ থেকে এসব বলছে।”

Advertisement

আরও পড়ুন: মেয়াদ বেড়ে সিডনিতে ভারতের প্রস্তুতি ম্যাচ হল চারদিনের​

আরও পড়ুন: অস্ট্রেলিয়া সফরের আগে ঝালিয়ে নিন আপনার ক্রিকেট মস্তিষ্ক

ব্লিউয়েট অবশ্য লক্ষ্মণের বক্তব্যকে পুরোপুরি অস্বীকার করেছেন। অস্ট্রেলিয়ার প্রাক্তন ক্রিকেটার বলেছেন, “গ্রেগের প্রতি আমার অগাধ শ্রদ্ধা। তাই অবাক হয়েছিলাম লক্ষ্মণের আত্মজীবনীর বক্তব্যে।” এই ব্যাপারে নিজের অবস্থান পরিষ্কার করতে খোদ চ্যাপেলকে ফোনও করেছেন ব্লিউয়েট। কী কথা হল? ব্লিউয়েট বলেছেন, “গ্রেগকে বললাম, সাউথ অস্ট্রেলিয়ার কোচ থাকাকালীন ওঁর সম্পর্কে শুধু ইতিবাচক কথাই বলার আছে। জানি না ভিভিএস এই বক্তব্য কোথা থেকে পেল! আমি কিন্তু কোনও নেতিবাচক কথা বলিনি।” ল্যাশিংসের হয়ে খেলার সময় লক্ষ্ণণের সঙ্গে যে চ্যাপেলকে নিয়ে কোনও কথাই হয়নি, তা যদিও বলছেন না ব্লিউয়েট। তিনি বলেছেন, “ক্রিকেট নিয়ে নানা কথা হত লক্ষ্মণের সঙ্গে। তাই চ্যাপেল নিয়ে যে কোনও কথাই হয়নি, তা বলছি না।”

(আইসিসি বিশ্বকাপ হোক বা আইপিএল, টেস্ট ক্রিকেট, ওয়ান ডে কিংবা টি-টোয়েন্টি। ক্রিকেট খেলার সব আপডেট আমাদের খেলা বিভাগে।)

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)


Something isn't right! Please refresh.

Advertisement