×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১৩ জুন ২০২১ ই-পেপার

কালকের ডার্বিতে কোহালিরাই বাজি বিশেষজ্ঞদের, পরিসংখ্যানে এগিয়ে পাকিস্তান

নিজস্ব প্রতিবেদন
০৩ জুন ২০১৭ ১৯:১৮
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

আর কয়েক ঘন্টার অপেক্ষা, তার পরই বিশ্ব ক্রিকেটের মহাগুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে মুখোমুখি হবে দুই চির প্রতিদ্বন্দ্বী ভারত-পাকিস্তান। শুধু দু’দেশের ক্রিকেট ভক্তরাই নন বিশ্ব ক্রিকেটের রোমহর্ষকর এই ম্যাচের দিকে চেয়ে আছেন অ্যাডিলেড থেকে অ্যাস্টন, ক্যালিফোর্নিয়া থেকে কলকাতা সব জায়গার ক্রিকেট ভক্তরা। ৪১০ দিনের প্রতীক্ষার অবসান ঘটিয়ে আবার মহারণে দুই প্রতিবেশী রাষ্ট্র। ক্রিকেটের এই ডার্বিকে কেন্দ্র করে ইতিমধ্যে সাজোসাজো রব এজব্যাস্টনে। উত্তেজনার আগুনে ফুটছে কলকাতার ক্রিকেট বিশেষজ্ঞরাও।

পাকিস্তানের বিপক্ষে ভারতের এই ম্যাচকে কার্যত জবাব দেওয়ার ম্যাচ হিসাবে ব্যাখ্যা করলেন প্রাক্তন রঞ্জি ক্রিকেটার সৌরাশিস লাহিড়ী। এ দিন আনন্দবাজারকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, “ক্রিকেট শুধু খেলাই নয় ভারতীয়দের কাছে এটি ধর্মের মত। এই ম্যাচ জিতে সীমান্ত পার্শ্ববর্তী অঞ্চলে পাক সেনার অবাঞ্চিত আক্রমণের ফলে নিহত জাওয়ানদের উদ্দেশে সঠিক শ্রদ্ধার্ঘ অর্পণ করবে কোহালিরা এটা আমার বিশ্বাস।”পাকিস্তানের চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিতে পাঠানো আনকোরা টিমের প্রসঙ্গেও এ দিন বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ যুক্তি তুলে আনেন ভিশন ২০-২০-এর অন্যতম বোলিং পরামর্শদাতা। তিনি বলেন, “পাকিস্তান দলটি বড়াবড়ই বিতর্কপ্রবণ। আর এই করণেই বারবার দলের অভ্যন্তরে পরিবর্তন করতে হয়েছে। ফলে কখনই সঙ্ঘবদ্ধ হয়নি দলটি। অন্য দিকে বহু দিন ধরে একই দল ধরে রাখার ফলে আগামিকালের ম্যাচে ফেভারিট হিসাবে শুরু করবে ভারত।” তবে সেট টিম হলেও ইন্ডিয়ান ক্রিকেটারদের উপর প্রত্যাশার চাপ যে খুব বেশি থাকবে তাও এ দিন জানিয়ে দিলেন সৌরাশিস। তিনি বলেন, “বিদেশের মাঠে হলেও গোটা ম্যাচে ভারতের উপরই চাপ থাকবে। কারণ এজব্যাস্টনে ফেভারিট হিসাবেই মাঠে নামবে কোহালি-রোহিত-ধবনরা। অন্য দিকে, নতুন দল হওয়ায় প্রত্যাশার চাপ থাকবে না পাক ক্রিকেটারদের উপর।”

আরও পড়ুন: কুম্বলে-কোহালি দ্বৈরথ মেটাতে আসরে নামলেন মহারাজ

Advertisement

এই হাইভোল্টেজ ম্যাচের উত্তেজনা আরও কয়েক গুণ বাড়িয়ে দিলেন প্রাক্তন জাতীয় নির্বাচক সম্বরন বন্ধ্যোপাধ্যায়। এ দিন তিনি বলেন, “শুধু ক্রিকেটেই নয় ভারত-পাকিস্তান এই দুই দেশ যে খেলাতেই মুখোমুখি হয় তাতেই উত্তেজনার বারুদ ঠেসে ভরা থাকে। কালকের ম্যাচও তার ব্যতিক্রম নয়।” এজব্যাস্টনে ভারতীয় ক্রিকেটারদের উপরই যে চাপ বেশি থাকবে তাও এদিন পরিষ্কার বলে দেন ভারতীয় ক্রিকেটের মাধুদা। তিনি বলেন, আনকোরা দল হিসেবে এসেছে পাকিস্তান। অধিনায়কও নতুন। স্বভাবতই তাদের কাছ থেকে প্রত্যাশা কম, অপর দিকে ধোনিদের কিন্তু সেট টিম। গোটা বিশ্ব চেয়ে থাকবে ওদের খেলার দিকে। বিদেশের মাঠ হলেও প্রত্যাশার ব্যাপক চাপ নিয়েই কাল মাঠে নামবে কুম্বলের দল।”

অন্য দিকে, ইংল্যান্ডের খাম খেয়ালি আবহাওয়া এই ডার্বিতে মহা গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা নেবে তাও এ দিন মনে করিয়ে দেন সম্বরন। তিনি বলেন, “এই মহা ডার্বির অনেকটাই নির্ভর করবে টসের উপর। কারণ বৃষ্টিপ্রবণ লন্ডনে টসের সুবিধা নিতে চাইবে দুই দলই। ফলে আমার মনে হয় কাল যেই টস জিতবে সে অনেকটা এগিয়ে শুরু করবে এবং প্রথমে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেবে।”

তবে আন্ডারডগ হিসাবে শুরু করলেও চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিতে ভারতের বিপক্ষে ট্র্যাক রেকর্ড বেশ ভাল পাকিস্তানের। ৩ বারের সাক্ষাতকারে ২ বারই ভারতকে হারিয়েছে পাক ক্রিকেটোররা। ভারতের জয় ১টি তে, তাও ডাক ওয়ার্থ লুইস পদ্ধতিতে।



Tags:
Champions Trophy India Pakistan Sambaran Banerjee Saurasish Lahiriভারতপাকিস্তানসম্বরন বন্ধ্যোপাধ্যায়সৌরাশিস লাহিড়ী

Advertisement