×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ই-পেপার

এটিকে-বাগান সংযুক্তির প্রক্রিয়া

নিজস্ব সংবাদদাতা
২২ নভেম্বর ২০১৮ ০৪:০৮

এটিকের সঙ্গে গাঁটছড়া বেঁধে মোহনবাগান পরের মরসুমে ইন্ডিয়ান সুপার লিগে খেলবে কি না, তা ঠিক হয়ে যাবে ডিসেম্বরের তৃতীয় সপ্তাহে। জানা গিয়েছে, সংযুক্তিকরণ চেয়ে মোহনবাগানের পাঠানো চিঠি নিয়ে ওই সময়ই আলোচনায় বসছেন এটিকে টিম ম্যানেজমেন্ট। সেখানে কী ভাবে, কোন পদ্ধতিতে দু’দল মিলতে পারে তার রূপরেখা ঠিক হবে।

মোহনবাগান এবং এটিকে-কে একটি দল হিসাবে নামানোর ব্যাপারে মূল উদ্যোগ নিয়েছে ইন্ডিয়ান সুপার লিগ কর্তৃপক্ষই। তাঁদের তরফে চিরাগ তান্না ইতিমধ্যেই দু’বার আলোচনা করে গিয়েছেন এটিকে কর্তাদের সঙ্গে। প্রাথমিক ভাবে এটিকে রাজি বলে খবর। মুম্বইয়ে ফোনে ধরা হলে চিরাগ অবশ্য এ দিন এই সংযুক্তির কথা অস্বীকার করেননি। বলে দিলেন, ‘‘আমি এই প্রসঙ্গে বলার দায়িত্বে নেই।’’ জানা গিয়েছে, প্রতিযোগিতার জৌলুস ফেরাতে কলকাতার দুই প্রধানকেই চাইছেন নীতা অম্বানির কোম্পানির কর্তারা। ইস্টবেঙ্গল ইতিমধ্যেই ভাল স্পনসর পেয়ে গিয়েছে। কিন্তু মোহনবাগান তা জোগাড় করতে পারেনি। লিগ কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কথা বলে নির্বাচনে জিতে আসা কর্তারা এটিকে-কে চিঠি দিয়েছেন। কিন্তু যেহেতু এটিকের সব সিদ্ধান্তই নেয় তাদের বোর্ড, তাই বোর্ডের সভা ছাড়া চূড়ান্ত কিছু করা সম্ভব নয়। সেটাই হবে ডিসেম্বরে।

মোহনবাগান এবং এটিকে এক হয়ে গেলে দু’পক্ষেরই লাভ বুঝিয়েছেন আইএসএল কর্তারা। মোহনবাগানের লাভ, তাদের কোনও স্পনসর খুঁজতে হচ্ছে না। নিলামে অংশ নিয়ে পনেরো কোটি টাকা ফ্রাঞ্চাইজি ফি দিয়ে খেলতে হবে না। আর এটিকের লাভ, তাদের আর্থিক ক্ষতি অনেক কমবে। মোহনবাগানের পরিকাঠামো ব্যবহার করা যাবে। প্রচারও অনেক বেশি পাওয়া যাবে। টিকিট বিক্রি করে প্রচুর টাকা উঠবে। কী শর্তে দু’পক্ষের গাঁটছড়া হবে তা নিয়ে প্রাথমিক আলোচনা হয়ে গিয়েছে। ক্লাবের নাম হবে এটিকে-মোহনবাগান অথবা মোহনবাগান-এটিকে। জার্সির বুকে দুই দলের লোগো থাকবে। তবে মোহনবাগান জার্সির রং বদলাচ্ছে না। থাকছে সবুজ-মেরুনই।

Advertisement
Advertisement