Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

০৪ ডিসেম্বর ২০২১ ই-পেপার

দু’দলকেই ধন্যবাদ সৌরভের, অনভিজ্ঞতাকে দুষছেন রোহিত

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা ০৪ নভেম্বর ২০১৯ ০৪:১৫
হতাশ: ন’রান করেই ফিরলেন। অধিনায়ক রোহিত। পিটিআই

হতাশ: ন’রান করেই ফিরলেন। অধিনায়ক রোহিত। পিটিআই

রবিবার নয়াদিল্লির অরুণ জেটলি স্টেডিয়ামে নিছকই একটা ক্রিকেট ম্যাচ ছিল না। ছিল বিষাক্ত বায়ু, দূষিত পরিবেশের সঙ্গে লড়াইও। ম্যাচের কয়েক ঘণ্টা আগেও প্রশ্ন উঠে গিয়েছিল, এই ম্যাচ কি আদৌ হবে? সোশ্যাল মিডিয়ায় অনেককেই দেখা যায়, ক্রিকেটারদের স্বাস্থ্য নিয়ে আশঙ্কা প্রকাশ করতে।

এই পরিস্থিতিতে নিঃসন্দেহে রীতিমতো উদ্বেগে ছিল ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড। রবিবার ম্যাচ শেষ হতেই তাই চলে এল নতুন বোর্ড প্রেসিডেন্টের টুইট। যেখানে সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায় লিখলেন, ‘‘কঠিন পরিস্থিতির মধ্যে এই ম্যাচটা খেলার জন্য দুটো দলকেই ধন্যবাদ। আর বাংলাদেশ, খুবই ভাল খেলেছ।’’

ভারত সফরে আসার আগেই তীব্র ডামাডোলের মধ্যে পড়েছিল বাংলাদেশ ক্রিকেট। আইসিসির শাস্তির কোপে পড়ে নির্বাসিত শাকিব আল হাসান। আসেননি তামিম ইকবালও। তাও হারতে হল ভারতকে। রাজধানীর বায়ুদূষণকে উপেক্ষা করেই এ দিন গ্যালারি ছিল দর্শক ঠাসা। কিন্তু তাঁরাও ফিরলেন দলের হার দেখে। ভারত অধিনায়ক রোহিত শর্মা হারের জন্য আবার দায়ী করছেন অনভিজ্ঞতা আর ফিল্ডিং ব্যর্থতাকে। তিনি বলেছেন, ‘‘এই রানেও ম্যাচ জেতা উচিত ছিল। কিন্তু ফিল্ডিংয়ের সময় আমরা যে ভুল করলাম, তার খেসারত দিতে হল।’’

Advertisement

ভারত অধিনায়ক যোগ করেন, ‘‘আমাদের দলটা একটু অনভিজ্ঞ। যেটা মাঠে ধরা পড়েছে। আশা করব, এই ভুল থেকে শিক্ষা নিতে পারবে দল।’’ এ দিন ভারত ডিআরএসও ঠিক করে নিতে পারেনি। দু’বার যেখানে নেওয়ার দরকার ছিল নেয়নি (যুজবেন্দ্র চহালের বলে), আবার যেখানে বল ব্যাটে লাগেনি সেখানে ডিআরএস নেন রোহিত। তিনটি ক্ষেত্রেই ঋষভের কথায় প্রভাবিত হন অধিনায়ক। তিনটি ক্ষেত্রেই ব্যাটসম্যান ছিলেন মুশফিকুর। যা নিয়ে রোহিতের মন্তব্য, ‘‘আমাদের ভুল হয়ে গিয়েছে ওই ক্ষেত্রে। কিন্তু এ সব ভুল থেকেই আমাদের শিখতে হবে।’’ চহালের বলে যদি ডিআরএস নেওয়া হত, তা হলে এলবিডব্লিউ হয়ে যেতেন মুশফিকুর। তা হলে নেওয়া হল না কেন? রোহিতের ব্যাখ্যা, ‘‘প্রথম বলটা মুশফিকুর ব্যাকফুটে খেলেছিল। আমরা ভেবেছিলাম বল লেগস্টাম্পের বাইরে যাচ্ছে। পরের বলটা ফ্রন্টফুটে খেলে পায়ে লাগায়। কিন্তু আমরা ভুলে গিয়েছিলাম যে, মুশফিকুরের উচ্চতা খুবই কম।’’

এই ম্যাচে খারাপ বল করেননি চহাল। ভারতের এই লেগস্পিনার চার ওভারে ২৪ রান দিয়ে এক উইকেট নেন। টি-টোয়েন্টি ফর্ম্যাটে চহালের প্রত্যাবর্তন নিয়ে রোহিত বলেন, ‘‘আমরা সব সময় চেয়েছি চহাল এই ফর্ম্যাটে আবার ফিরে আসুক। সামনের দিকে এগিয়ে যাওয়ার ক্ষেত্রে চহাল আমাদের কাছে খুব গুরুত্বপূর্ণ। মাঝের ওভারগুলোয় ও কতটা গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা নিতে পারে, সেটা আবার বুঝিয়ে দিল। নিজের উপরে পুরো আস্থা আছে ওর।’’

নিজেদের ভুলের কথা বলেও বাংলাদেশের প্রশংসা করছেন রোহিত। তিনি বলেছেন, ‘‘বাংলাদেশের কৃতিত্বকে একটুও খাটো করলে চলবে না। আমাদের ব্যাটিংয়ের সময় শুরু থেকেই চাপ তৈরি করে গিয়েছিল বাংলাদেশ।’’

এ দিন শিখর ধওয়নের রান আউট নিয়ে আবার ঋষভকে কাঠগড়ায় তুলেছেন সুনীল গাওস্কর। দ্বিতীয় রান নিতে গিয়ে আউট হন ধওয়ন। যা দেখে ধারাভাষ্য দিতে থাকা গাওস্কর বলে ওঠেন, ‘‘পন্থ এটা কী করল। এক জন সেট হয়ে যাওয়া ব্যাটসম্যানকে এই ভাবে রান আউট করে দিল। পন্থের দোষেই কিন্তু রান আউট হয়ে গেল ধওয়ন।’’

আরও পড়ুন

Advertisement