Advertisement
০৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৩
Virat Kohli

ভারতে আট দিন বলয়ে থাকতে হবে বিরাটদের

করোনা সংক্রমণের কারণে মাঝপথে আইপিএল স্থগিত হয়ে যাওয়ার পরে এ বার সবার নজর এই ফাইনালে।

ফাইল চিত্র।

ফাইল চিত্র।

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা শেষ আপডেট: ০৯ মে ২০২১ ০৫:৪৩
Share: Save:

বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ ফাইনালের আগে করোনা সংক্রমণ এড়াতে কঠোর নিরাপত্তার ব্যবস্থা করছে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড। ভারতে আট দিনের জৈব সুরক্ষা বলয়ে কাটানোর পরে ইংল্যান্ডে পা রেখে ১০ দিনের নিভৃতবাসে থাকতে হবে বিরাট কোহালিদের। আগামী ১৮ জুন থেকে সাউদাম্পটনে শুরু ঐতিহাসিক এই টেস্ট ফাইনাল। যে প্রতিযোগিতার প্রথম বছরেই খেতাবি লড়াইয়ে মুখোমুখি হচ্ছে কোহালির ভারত এবং কেন উইলিয়ামসনের নিউজ়িল্যান্ড। করোনা সংক্রমণের কারণে মাঝপথে আইপিএল স্থগিত হয়ে যাওয়ার পরে এ বার সবার নজর এই ফাইনালে। যে কারণে কোনও রকম ঝুঁকি নিতে চাইছে না ভারতীয় বোর্ড।

Advertisement

সংবাদ সংস্থা এএনআই-কে বোর্ডের এক কর্তা জানিয়েছেন, দেশের মাঠে ২৫ মে থেকে জৈব সুরক্ষা বলয়ে প্রবেশ করতে হবে কোহালিদের। এর পরে সম্ভবত ২ জুনের পরে ইংল্যান্ডে পা দিয়ে চলে যেতে হবে নিভৃতবাসে। এই ভাবে দু’দফায় নিভৃতবাস পর্বকে ভেঙে দেওয়ার কারণ একটাই। যাতে কোহালিরা ইংল্যান্ডে নিভৃতবাসে থেকেও অনুশীলন শুরু করে
দিতে পারেন।

ভারতীয় বোর্ডের ওই কর্তাটি বলেছেন, ‘‘২৫ মে-র মধ্যে ক্রিকেটারেরা সম্ভবত জৈব সুরক্ষা বলয়ে প্রবেশ করবে। এই আট দিনে ক্রিকেটারদের বেশ কয়েক বার করোনা পরীক্ষা হবে। পাশাপাশি নির্দিষ্ট জায়গা ছাড়া ক্রিকেটারেরা কোথাও যেতে পারবে না। এর পরে কোহালিরা সোজা চলে আসবে ইংল্যান্ডে।’’ ইংল্যান্ডে প্রথমে বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে খেলার পরে জো রুটদের বিরুদ্ধে লম্বা টেস্ট সিরিজও খেলবেন কোহালিরা। সংবাদ সংস্থা পিটিআই জানিয়েছে, টেস্ট ফাইনালে থাকতে পারেন ভারতীয় বোর্ডের প্রেসিডেন্ট সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায় এবং সচিব জয় শাহ।

দু’দফার এই নিভৃতবাসের সুবিধে হল, অনুশীলন করতে সম্ভবত সমস্যা হবে না কোহালিদের। বোর্ডকর্তাটি বলেছেন, ‘‘ইংল্যান্ডে নিভৃতবাসে থাকলেও অনুশীলন চলার কথা কোহালিদের। কারণ ওরা এক বলয় থেকে আর এক বলয়ে যাচ্ছে বিশেষ বিমানে। এক বলয় থেকে সরাসরি অন্য বলয়ে গেলে অনুশীলনে কোনও সমস্যা হবে না। তা ছাড়া ওদের নিয়মিত করোনা পরীক্ষা করা হবে। এবং, নির্দিষ্ট জায়গার মধ্যেই থাকতে হবে ক্রিকেটারদের।’’

Advertisement

নিউজ়িল্যান্ডের বিরুদ্ধে ১৮ জুন টেস্ট ফাইনালের পরে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে পাঁচ টেস্টের সিরিজ খেলবে ভারত। পঞ্চম টেস্ট শেষ হওয়ার কথা ১৪ সেপ্টেম্বর। অর্থাৎ তিন মাসের উপরে ইংল্যান্ডে থাকতে হবে কোহালিদের। যে কারণে পরিবারকে নিয়ে যাওয়ার অনুমতি দেওয়া হবে ভারতীয় ক্রিকেটারদের। ‘‘শুধু তো লম্বা সময়ে বিদেশে থাকা নয়, কোভিডের কারণে ক্রিকেটারদের উপরে অনেক বিধিনিষেধও থাকবে। তার উপরে টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালের এক মাসেরও বেশি পরে, ৪ অগস্ট, শুরু হবে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজ,’’ বলেছেন কর্তাটি।

আরও একট গুরুত্বপূর্ণ ব্যাপার আছে। তা হল, ক্রিকেটারদের প্রতিষেধক নেওয়া। বোর্ডকর্তাটির মতে, আর কিছু দিনের মধ্যে পরিষ্কার একটা ছবি পাওয়া যাবে। যদিও টেস্টে ভারতের সহ-অধিনায়ক অজিঙ্ক রাহানে প্রতিষেধক নিয়ে নিয়েছেন। বোর্ডের ওই কর্তা বলেছেন, ‘‘এখন তো ১৮ বছরের উপরে সবাই প্রতিষেধক নিতে পারবে। তাই ক্রিকেটারেরা প্রথম প্রতিষেধক নিয়ে নিতে পারবে। কিন্তু প্রশ্ন থাকবে দ্বিতীয় প্রতিষেধক নেওয়ার ক্ষেত্রে। ভারতীয় বোর্ড ইতিমধ্যেই কথা চালাচ্ছে ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ডের সঙ্গে। চেষ্টা হচ্ছে, যদি ইসিবি দ্বিতীয় প্রতিষেধকের ব্যবস্থা করে দেয়। কিন্তু সে দেশের সরকার রাজি না হলে তখন ভারত থেকে প্রতিষেধক নিয়ে যেতে হবে। দেখা যাক, কী দাঁড়ায় অবস্থা।’’

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.