Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

০৫ ডিসেম্বর ২০২১ ই-পেপার

থানার মধ্যেই কর্তব্যরত মহিলা কনস্টেবলকে মারধর, শ্লীলতাহানি!

নিজস্ব সংবাদদাতা
২৬ ডিসেম্বর ২০১৬ ০৯:২৫

বন্ধুদের কেন আটকে রাখা হয়েছে? এই প্রশ্ন তুলে থানায় হামলা চালাল এক দল যুবক। মারধর করা হল এক মহিলা কনস্টেবলকে। শুধু তাই নয়, থানার ভিতরে তাঁর শ্লীলতাহানিও করল তারা। বড়দিনের রাতে উত্তর ২৪ পরগনার ঘোলা থানার এই ঘটনায় এখনও পর্যন্ত চার যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

পুলিশ জানিয়েছে, বড়দিনের রাতে রাস্তায় রুটিন তল্লাশি চালানো হচ্ছিল। মুড়াগাছার কাছে রাস্তার পাশে বেশ কিছু বার এবং ধাবা রয়েছে। সেখানে তখন তুমুল ভিড়। রাস্তায় গাড়ি-বাইকের ছড়াছড়ি। সেই সময় জোরে বাইক চালানোর অভিযোগে তিন যুবককে পাকড়াও করে পুলিশ। অভিযোগ, মদ্যপ অবস্থায় বাইক চালাচ্ছিলেন তাঁরা। ধৃতদের ঘোলা থানায় নিয়ে যাওয়া হয়। বন্ধুদের পুলিশ ধরে নিয়ে গিয়েছে, এই খবর পেয়েই তাঁদের বেশ কিছু সঙ্গী থানায় পৌঁছয়।

আরও পড়ুন: ফেরিওয়ালার অ্যাকাউন্টে ৫৫ লাখের লেনদেন!

Advertisement

বন্ধুদের ছেড়ে দিতে হবে। এই দাবিতে থানার সামনে চিত্কার করতে থাকে ওই যুবকেরা। জোর করে থানার ভিতর ঢোকার চেষ্টাও করেন বলে অভিযোগ। সেই সময় থানার গেটে এক মহিলা কনস্টেবল রক্ষী হিসেবে ছিলেন। তিনি ওই যুবকদের বাধা দেওয়ার চেষ্টা করলে তাঁকে প্রথমে ধাক্কা মারা হয়। সঙ্গে চলে অকথ্য গালিগালাজ এবং মারধর। পাশাপাশি তাঁর শ্লীলতাহানিও করা হয় বলে অভিযোগ।

মহিলা সহকর্মীকে বাঁচাতে অন্য পুলিশকর্মীদেরও ধাক্কাধাক্কি করা হয়। পরে আরও পুলিশ এসে পরিস্থিতি সামলায়। কর্তব্যরত পুলিসকর্মীকে মারধর, তাঁর শ্লীলতাহানি এবং থানায় তাণ্ডব চালানোর অভিযোগে চার যুবককে গ্রেফতার করে পুলিশ। সোমবার তাঁদের আদালতে তোলা হবে।

আরও পড়ুন

Advertisement