Advertisement
২৫ জুন ২০২৪
Nabanna

Agnipath: বিশৃঙ্খলা বরদাস্ত নয়, কলকাতা-সহ জেলা প্রশাসনকে অগ্নি-বিক্ষোভ নিয়ে সতর্ক করল নবান্ন

অগ্নিপথ প্রকল্পের প্রতিবাদের আঁচ ছড়িয়েছে বাংলাতেও। জেলা প্রশাসনকে বিক্ষোভ নিয়ে সতর্ক করল নবান্ন। সতর্ক করা হয়েছে কলকাতার থানাগুলিকেও।

ফাইল চিত্র।

ফাইল চিত্র।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ১৭ জুন ২০২২ ১৯:০৩
Share: Save:

মোদী সরকারের অগ্নিপথ প্রকল্পের প্রতিবাদের রেশ এসে পৌঁছেছে পশ্চিমবঙ্গেও। শুক্রবার সকাল থেকে রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে বিক্ষোভের ছবি সামনে এসেছে। এই পরিস্থিতিতে জেলা প্রশাসনকে অগ্নি-বিক্ষোভ নিয়ে সতর্ক করল নবান্ন। কোনও ভাবেই বিশৃঙ্খলা বরদাস্ত করা হবে না, নবান্নের তরফে এমনই বার্তা দেওয়া হয়েছে বলে জানা গিয়েছে।

সূত্রের দাবি, নবান্নের পক্ষ থেকে কলকাতার সমস্ত থানাকে সতর্ক করা হয়েছে। শুক্রবার সকাল থেকে হাওড়া, কলকাতার একাংশে কেন্দ্রীয় প্রকল্পের বিরোধিতায় বিক্ষোভ প্রদর্শিত হয়। কলকাতা এবং হাওড়়ার রেল পরিষেবাতেও প্রভাব পড়েছে। বাতিল করা হয়েছে একের পর এক দূরপাল্লার যাত্রিবাহী ট্রেন। শুক্রবার সকালে হাওড়়া এবং কলকাতা থেকে পাঁচটি ট্রেন বাতিল করার কথা ঘোষণা করা হয়।

অগ্নিপথ প্রকল্পের প্রতিবাদে কেন্দ্রীয় জাহাজ প্রতিমন্ত্রী শান্তনু ঠাকুরের বাসভবনের কাছে বিক্ষোভে শামিল হন চাকরিপ্রার্থীরা। শুক্রবার সকালেই কেন্দ্রীয় সরকারের ওই প্রকল্পের প্রতিবাদে ঠাকুরনগরে রেল অবরোধ করেন তাঁরা। সেখানে ঘণ্টা দেড়েক বিক্ষোভ দেখানো হয়। রেল আধিকারিকদের সঙ্গে কথা বলার পর অবরোধ তুলে নেওয়া হয়। এর পরই ঠাকুরনগর স্টেশন থেকে মিছিল করে শান্তনুর বাড়ির সামনে এসে বিক্ষোভ দেখান বিক্ষোভকারীরা। কিন্তু পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে তাঁদের ঠাকুরবাড়ির সামনেই আটকে দেয়। শান্তনুর সঙ্গে দেখা করে নিজেদের দাবি জানান বিক্ষোভকারীদের একাংশ।

অন্য দিকে, বৃহস্পতিবারের পর শুক্রবারও কেন্দ্রীয় প্রকল্পের বিরোধিতায় দেশের বিভিন্ন প্রান্তে অশান্তির আগুন জ্বলছে। ফের ট্রেনে অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটেছে। সেকেন্দরাবাদে পুলিশের গুলিতে এক বিক্ষোভকারীর মৃত্যু হয়েছে।

সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তেফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ

অন্য বিষয়গুলি:

Nabanna Agnipath Agnipath Scheme West Bengal
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE