Advertisement
২৮ জানুয়ারি ২০২৩

ঝাঁটা, ফিনাইল হাতে শৌচাগারে মন্ত্রী

নদিয়া জেলায় ঢোকার মুখে এই মোড় দিয়ে প্রতিদিন বহু মানুষ যাতায়াত করেন। কয়েক বছর আগে নিয়ন্ত্রিত বাজার কমিটি ব্যবসায়ী, সাধারণ মানুষজনের প্রয়োজনে একটি শৌচাগার নির্মাণ করে সেখানে।

সাতসকালে সাফাইয়ে ব্যস্ত মন্ত্রী। নিজস্ব চিত্র

সাতসকালে সাফাইয়ে ব্যস্ত মন্ত্রী। নিজস্ব চিত্র

নিজস্ব সংবাদদাতা
কালনা শেষ আপডেট: ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ০১:১০
Share: Save:

জনবহুল এলাকায় নোংরা শৌচাগার নিয়ে আগেও অভিযোগ হয়েছিল। কিন্তু সাফাই হয়নি। সোমবার ভোরে বালতি, ঝাঁটা, ফিনাইল নিয়ে পূর্বস্থলী ১ ব্লকের হেমায়েতপুর মোড়ের ওই শৌচাগার পরিষ্কার করতে দেখা গেল মন্ত্রী স্বপন দেবনাথকে।

Advertisement

নদিয়া জেলায় ঢোকার মুখে এই মোড় দিয়ে প্রতিদিন বহু মানুষ যাতায়াত করেন। কয়েক বছর আগে নিয়ন্ত্রিত বাজার কমিটি ব্যবসায়ী, সাধারণ মানুষজনের প্রয়োজনে একটি শৌচাগার নির্মাণ করে সেখানে। অভিযোগ, ব্যবহারের পরে জল না দেওয়া, নোংরা রাখার জন্য দিনভরই দুর্গন্ধ বার হয় শৌচাগারটি থেকে। ওই শৌগারের কাছেই রয়েছে তৃণমূলের একটি কার্যালয়। সেখানে বেশির ভাগ সময় রাতও কাটান মন্ত্রী স্বপনবাবু। শনিবারও সেখানেই ছিলেন তিনি। স্থানীয় বাসিন্দাদের দাবি, ঘুম থেকে উঠেই লুঙ্গি, পাঞ্জাবি পড়া মন্ত্রীকে ঝাঁটা, বালতি, ফিনাইল নিয়ে শৌচাগারে জল ঢালতে, ফিনাইল ছড়াতে দেখা যায়। সাহায্যে এগিয়ে আসেন এলাকার কয়েকজন। ঘণ্টা দেডেকের চেষ্টায় শেষ হয় সাফাই।

মন্ত্রী বলেন, ‘‘২০১৮ সালের ২ জানুযারি মুখ্যমন্ত্রী পূর্ব বর্ধমান জেলাকে নির্মল ঘোষণা করেছেন। কিন্তু অনেকেই তা নিয়ে সচেতন নন। তাই নিজে আচরি ধর্ম, অপরে শেখাই।’’ বিজেপির অন্যতম রাজ্য সম্পাদক রাজীব ভৌমিকের কটাক্ষ, ‘‘ওঁর কৌশল সম্বন্ধে আমরা ওয়াকিবহাল। ফিনাইল দিয়ে শৌচাগার পরিষ্কার না করে নিজের দলের দুর্নীতিগ্রস্ত নেতাদের পরিষ্কার করে সাধারণ মানুষকে বাঁচান। তাতে মানুষের মঙ্গল হবে।’’

Advertisement
(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.