×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

০৯ মে ২০২১ ই-পেপার

অন্ডালে তৃণমূলকর্মীকে লক্ষ্য করে পর পর দু’টি গুলি দুষ্কৃতীদের

নিজস্ব সংবাদদাতা
অন্ডাল ১৩ জানুয়ারি ২০২১ ০০:১৮
প্রতীকী ছবি।

প্রতীকী ছবি।

তৃণমূলের এক কর্মীকে লক্ষ্য করে গুলি চালাল অজ্ঞাতপরিচয় দুষ্কৃতীরা। পশ্চিম বর্ধমান জেলার ওই তৃণমূলকর্মীর অবস্থা আশঙ্কাজনক। মঙ্গলবার রাতে এই ঘটনার তদন্তে নামলেও এখনও পর্যন্ত কাউকে গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ।

পুলিশ সূত্রে খবর, অন্ডালের সিদুলির বাসিন্দা তথা স্থানীয় তৃণমূলকর্মী লক্ষ্মণ কেওটের পিঠে দু’টি গুলি লেগেছে। প্রতি দিনের মতোই মঙ্গলবার সিদুলি কোলিয়ারি এলাকায় দলীয় কার্যালয় থেকে নিজের বাড়ি ফিরছিলেন বছর আটত্রিশের লক্ষ্মণ। রাত সাড়ে নটা নাগাদ তাঁর উপর হামলা চালায় দুষ্কৃতীরা। পিছন থেকে পর পর দু’টি গুলি ছোড়ে তারা।

প্রত্যক্ষদর্শীদের দাবি, গুলি লাগার পর সঙ্গে সঙ্গে মাটিতে লুটিয়ে পড়েন লক্ষ্মণ। তাঁকে উদ্ধারের জন্য আশপাশ থেকে লোকজন ছুটে এলে ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায় দুষ্কৃতীরা। লক্ষ্ণণকে গুরুতর আহত অবস্থায় উদ্ধার করে দুর্গাপুরের একটি বেসরকারি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। তবে সেখান থেকে তাঁকে রেফার করা হয় পাশের একটি বেসরকারি হাসপাতালে। ওই হাসপাতালের চিকিৎসকেরা জানিয়েছেন, লক্ষ্মণের পিঠ থেকে গুলি বার করতে অস্ত্রোপচার করা হবে।

Advertisement

তৃণমূলকর্মীর উপরে গুলিচালনার ঘটনায় সিদুলি এলাকায় উত্তেজনা রয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে ইতিমধ্যেই ওই এলাকার পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

আরও পড়ুন: তৃণমূলে আসতে লাইন দিয়ে দাঁড়িয়ে ৭ সাংসদ, দাবি জ্যোতিপ্রিয়র

এই ঘটনায় কারা জড়িত বা ঠিক কী কারণে গুলি চালানো হল, তা খতিয়ে দেখার দাবি জানিয়েছে তৃণমূল। দলের রাজ্য কমিটির সদস্য ভি শিবদাসন বলেন, ‘‘এক তৃণমূলকর্মীর উপর গুলি চালানো হয়েছে বলে খবর পেয়েছি। তাঁকে দুর্গাপুরের বেসরকারি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। আমরা আগামিকাল ঘটনাস্থলে যাব। দোষী ব্যক্তিদের দ্রুত গ্রেফতারের চেষ্টা করুক পুলিশ।’’

পুলিশ জানিয়েছে, এই হামলার পিছনে কারা জড়িত, তা খতিয়ে দেখা হয়েছে। ওই দুষ্কৃতীদেরও খোঁজ করা হচ্ছে।

Advertisement