Advertisement
০৫ অক্টোবর ২০২২
Vivek Sahay

Cyber Crime: খোদ রাজ্য নিরাপত্তা অধিকর্তার অ্যাকাউন্টই ক্লোনড! লিখে জানালেন নিজেই

সোমবার রাতে ফেসবুকে বিষয়টি জানিয়ে সকলকে সতর্কও করেছেন নিরাপত্তা অধিকর্তা। ফেসবুকে তিনি লেখেন, ‘আমার ফেসবুক অ্যাকাউন্ট ক্লোন করা হয়েছে।

বিবেক সহায়।

বিবেক সহায়। ছবি ফেসবুক।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ২৭ জুলাই ২০২১ ০০:২৫
Share: Save:

এ বার সাইবার অপরাধের শিকার হলেন খোদ রাজ্যের নিরাপত্তা অধিকর্তা বিবেক সহায়। অভিযোগ, তাঁর ফেসবুক অ্যাকাউন্ট ক্লোন করে পরিচিতদের কাছে টাকা চাওয়া হচ্ছে। বিষয়টি নজরে আসতেই কলকাতা পুলিশে অভিযোগ দায়ের করেন বিবেক।

সোমবার রাতে ফেসবুকে বিষয়টি জানিয়ে সকলকে সতর্কও করেছেন নিরাপত্তা অধিকর্তা। ফেসবুকে তিনি লেখেন, ‘আমার ফেসবুক অ্যাকাউন্ট ক্লোন করা হয়েছে। এবং একটি ভুয়ো মেসেঞ্জার বক্স বানানো হয়েছে। সেই মেসেঞ্জারের মাধ্যমে আমার পরিচিতদের কাছে টাকা চাওয়া হচ্ছে।’ যে নম্বরে টাকা লেনদেনের কথা বলা হয়েছে সেই নম্বরও শেয়ার করেছেন বিবেক। পাশাপাশি ক্লোন করা তাঁর অ্যাকাউন্টের একটি কথোপকথনও শেয়ার করেছেন নিরাপত্তা অধিকর্তা।

ওই কথোপকথনে স্পষ্ট দেখা যাচ্ছে ১৫ হাজার টাকা চাওয়া হচ্ছে নিরাপত্তা অধিকর্তার ফেসবুক অ্যাকাউন্ট ব্যবহার করে। যে নম্বরে টাকা পাঠাতে বলা হচ্ছে সেটা হল ৮২৬০৮৫০৭১২। বিবেক ফেসবুকে লিখেছেন, ‘গাজিয়াবাদ বা পটনা থেকে মূলত এই ধরনের নেটওয়ার্ক চালায় দুষ্কৃতীরা। এই ধরনের সাইবার অপরাধের বিরুদ্ধে আমরা পদক্ষেপ শুরু করেছি। আমার একটাই আবেদন আপনারা সমস্ত পরিচিত এবং বন্ধুবান্ধবদের বিষয়টি নিয়ে সতর্ক করুন। কেউ যেন এই ফাঁদে পড়ে টাকা না দেন।’

এই ঘটনা সামনে আসতেই নিজের প্রোফাইলের ছবি বদলে ফেলেছেন নিরাপত্তা অধিকর্তা। একই সঙ্গে জানিয়ে দিয়েছেন, তাঁর অন্য প্রোফাইল ছবি লাগানো অ্যাকাউন্ট থেকে কোনও অনুরোধ এলে কেউ যেন তা গ্রহণ না করেন।

এই প্রথম নয়, এর আগেও পুলিশের বেশ কয়েক জন আধিকারিক এবং শীর্ষ কর্তাও সাইবার অপরাধের শিকার হয়েছিলেন। তাঁদের নামে ভুয়ো ফেসবুক প্রোফাইল বানিয়ে প্রতারণার জাল বিছিয়েছিল দুষ্কৃতীরা। এ বার সেই সাইবার অপরাধের শিকার হলেন খোদ রাজ্যের নিরাপত্তা অধিকর্তা।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.