×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১৫ এপ্রিল ২০২১ ই-পেপার

পুকুর থেকে বধূর দেহ উদ্ধারের ঘটনায় রহস্য

নিজস্ব সংবাদদাতা
হাওড়া ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ০৭:৩৬
মৌমিতা হাজরা।

মৌমিতা হাজরা।

হাওড়ার ব্যাঁটরার বাসিন্দা এক গৃহবধূর মৃতদেহ উদ্ধার হল ডোমজুড়ের একটি পুকুর থেকে। পুলিশ জানিয়েছে, মৃতার নাম মৌমিতা হাজরা (২৫)। শুক্রবার সকালে ডোমজুড় থানার ষষ্ঠীতলা এলাকার একটি জলাশয় থেকে ওই বধূর দেহ উদ্ধারকে কেন্দ্র করে চাঞ্চল্য ছড়ায়। দেহটি জলে ভাসতে দেখে এলাকার বাসিন্দারাই ডোমজুড় থানায় খবর দেন। পুলিশ এসে দেহ উদ্ধার করে ময়না-তদন্তে পাঠায়।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, মৌমিতা ব্যাঁটরার ফকিরচাঁদ ঘোষ লেনে তাঁর শ্বশুরবাড়িতে থাকতেন। বাড়িতে স্বামী, শ্বশুর, শাশুড়ি ছাড়াও তাঁদের দু’বছরের এক সন্তান রয়েছে। বৃহস্পতিবার মৌমিতা শ্বশুরবাড়ি থেকে ডোমজুড়ে এক আত্মীয়ের বাড়িতে যাচ্ছেন বলে বেরিয়ে যান। তার পরে রাতেও তিনি না ফেরায় খোঁজখবর শুরু করেন বাড়ির লোকজন। এ দিন সকালে খবর পাওয়া যায়, একটি জলাশয় থেকে তাঁর দেহ উদ্ধার হয়েছে।

ব্যাঁটরা থানার পুলিশ জানিয়েছে, এই মৃত্যুকে ঘিরে ইতিমধ্যেই রহস্য দানা বাঁধতে শুরু করেছে। ঘটনাটি আত্মহত্যা না কি খুন, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। পুলিশ জানতে পেরেছে, বছর চারেক আগে মৌমিতার বিয়ে হয় পাড়ারই এক যুবকের সঙ্গে। কোনও ধরনের সাংসারিক অশান্তি বা অস্বাভাবিকতার ঘটনা আত্মীয়েরা জানতেন না বলে পুলিশকে জানিয়েছেন। তাই ঠিক কী কারণে এমন ঘটনা ঘটল, তা ভাবাচ্ছে তদন্তকারীদের। ডোমজুড় থানা ইতিমধ্যেই অস্বাভাবিক মৃত্যুর একটি মামলা রুজু করে তদন্ত শুরু করেছে।

Advertisement

হাওড়া সিটি পুলিশের এক পদস্থ কর্তা জানান, যেখান থেকে মৃতদেহ উদ্ধার হয়েছে, সেখানকার সিসি ক্যামেরার ফুটেজ খতিয়ে দেখা হচ্ছে। পাশাপাশি, যে আত্মীয়ের বাড়িতে মৌমিতা যাবেন বলেছিলেন, তাঁদেরও জিজ্ঞাসাবাদও করা হবে। পুলিশ জানায়, ময়না-তদন্তের রিপোর্ট না পাওয়া পর্যন্ত ঠিক কী ভাবে মৌমিতার মৃত্যু হয়েছে, তা স্পষ্ট জানা যাবে না।



Tags:

Advertisement