Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

১৭ মে ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

Covid 19: ‘সরকারি কর্মচারীদের টিকাকরণে অগ্রাধিকার দিন’, মোদীকে চিঠি মমতার

রাজ্য এবং কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মচারীদের টিকাকরণের জন্য ২০ লক্ষ করোনার টিকা চেয়ে প্রধানমন্ত্রীকে চিঠি লিখলেন মুখ্যমন্ত্রী।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ২০ মে ২০২১ ১৭:২৯
Save
Something isn't right! Please refresh.
নরেন্দ্র মোদী এবং মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

নরেন্দ্র মোদী এবং মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

Popup Close

সরকারি কর্মচারীদের টিকাকরণের জন্য কেন্দ্রের কাছে ২০ লক্ষ টিকা চাইলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে একটি চিঠি দিয়ে তিনি জানিয়েছেন, দ্রুত এই টিকা সরবরাহের ব্যবস্থা করুক কেন্দ্র। যাতে নিরন্তর জনগণের সংস্পর্শে আসা সরকারি কর্মীরা টিকা নিয়ে করোনা থেকে বাঁচতে পারেন।

বৃহস্পতিবার ওই চিঠিতে দেশের সবক’টি রাজ্যকেই দ্রুত ওই টিকা সরবরাহ করার অনুরোধ করেছেন মমতা। সরকারি কর্মচারীদের টিকাকরণের জন্য অবিলম্বে অতিরিক্ত টিকার জোগান শুরু করতে অনুরোধ জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রীর কাছে। মমতা লিখেছেন, ‘রাজ্য এবং কেন্দ্র সরকারের যে সব কর্মীকে নিয়মিত জনগণের সংস্পর্শে আসতে হয়, তাঁদের টিকাকরণের গুরুত্ব নিশ্চয়ই আপনি জানেন। ভোটের আগে তাঁদের অনেকেরই টিকা দেওয়া হয়েছে। তবে বাকিদের টিকাকরণ সম্পূর্ণ করতে আরও ২০ লক্ষ টিকা দরকার রাজ্যের’। এই টিকা দেশের অন্যান্য রাজ্যের সরকারি কর্মীদের জন্যও সরবরাহ করার অনুরোধ করেছেন মমতা।

বৃহস্পতিবারই দেশের ১০ রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে বৈঠকে হাজির ছিলেন প্রধানমন্ত্রী। সেই বৈঠকে ছিলেন মমতাও। যদিও বৈঠকে এ সংক্রান্ত কোনও আলোচনাই করা যায়নি বলে জানিয়েছেন মমতা। একটি সাংবাদিক বৈঠক করে পরে তিনি জানান, কোনও মুখ্যমন্ত্রীকে কথা বলতেই দেওয়া হয়নি।

Advertisement

পরে প্রধানমন্ত্রীকে লেখা চিঠিতে মমতা জানিয়েছেন, রেল, বিমান, বন্দর-সহ প্রতিরক্ষা বিভাগ, ব্যাঙ্ক, বিমা, ডাক, টেলিফোন এবং কয়লা শিল্পের সঙ্গে যুক্ত কর্মীরা নিয়মিত জনগণের সংস্পর্শে আসেন। ফলে নিয়মিত করোনা সংক্রমণের অনেক বেশি ঝুঁকির মুখোমুখি হন তাঁরা। কিন্তু কেন্দ্রের নীতি এই কর্মচারীদের অগ্রাধিকারের ভিত্তিতে টিকা দেওয়ার কোনও সুবিধা নেই। এ বিষয়ে প্রধানমন্ত্রীকে অবিলম্বে ব্যবস্থা নিতে বলেছেন মমতা।



Something isn't right! Please refresh.

আরও পড়ুন

Advertisement