Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

৩০ নভেম্বর ২০২১ ই-পেপার

কানপুরে কাজে গিয়ে কোমর ভাঙল কিশোরীর

নিজস্ব সংবাদদাতা
শিলিগুড়ি ০৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ ০৩:১৪
প্রতীকী ছবি।

প্রতীকী ছবি।

মোটা মাস মাইনে। তা শুনেই ভিন রাজ্যে কাজে যেতে রাজি হয়ে গিয়েছিল কিশোরী অ্যাভ্রেন্সিয়া ওঁরাও। কিন্তু অর্ধেক মাসও কাজ করতে পারেনি সে। অভিযোগ, দিনভর হাড়ভাঙা খাটুনি এবং দিনের শেষে নামমাত্র খাবার জুটত সেই বাড়িতে। প্রতিবাদ করেও লাভ হয়নি। শেষে পালাতে গিয়ে ধরা পড়ে যায় সেই কিশোরী। অভিযোগ, তখন তাকে মারধর করে তিন তলা থেকে নীচে আবর্জনার উপরে ছুড়ে ফেলা হয়। প্রাণে বাঁচলেও এখন সে কোমর ভেঙে মাটিগাড়ার একটি নার্সিংহোমে শয্যাশায়ী।

ঘটনার সূত্রপাত গত মাসে। কাজের খোঁজ নিয়ে নকশালবাড়িতে অর্ড চা বাগানে অ্যাভ্রেন্সিয়াদের বাড়িতে আসে এক এজেন্ট। তার মা সরিতা ওঁরাও জানান, তিনি মেয়েকে ছাড়তে রাজি ছিলেন না। কিন্তু মাসে দশ হাজার টাকা মাইনের কথা শুনে অ্যাভ্রেন্সিয়া যেতে চায়। সেই মতো ৫ জানুয়ারি কানপুরে ওই ব্যবসায়ীর বাড়িতে কাজে যোগ দেয় সে।

শনিবার নার্সিংহোমে শুয়ে শুয়ে অ্যাভ্রেন্সিয়া জানায়, প্রথম থেকেই বাড়িতে ছিল হাড়ভাঙা খাটুনি। ভোর পাঁচটায় তাকে ঘুম থেকে উঠতে হত। তার পর সারা দিন ধরে চলত ঘর ঝাড়পোঁছ, বাসন মাজা, কাপড় কাচা। অ্যাভ্রেন্সিয়ার অভিযোগ, ‘‘সারাদিন কাজ করে প্রচণ্ড খিয়ে পেত। রাতে এক হাতা ভাত আর দু’চামচ ডাল খেতে দিত। দিনে তা-ও পেতাম না।’’

Advertisement

এই অবস্থায় এক দিন বাড়ি ফিরতে চায় অ্যাভ্রেন্সিয়া। তার অভিযোগ, সে কথা শুনে মালিক এবং মালিকের বউ মিলে চটিপেটা করেন। এর পরে ১৬ জানুয়ারি সন্ধ্যায় সে পালানোর চেষ্টা করে। কিন্তু বাড়িতে ক্লোজড সার্কিট ক্যামেরা থাকায় সে পালাতে পারেনি। তার অভিযোগ, ‘‘তখন সকলে আমাকে খুব মারে। তার পর মালিকের নির্দেশে অফিসের দু’জন কর্মী আমাকে বেঁধে তিন তলা থেকে পাশের নর্দমায় ছুড়ে ফেলে। ব্যথায় জ্ঞান হারিয়ে ফেলি। পরে শুনেছি এলাকার কয়েক জন আমাকে উদ্ধার করে পুলিশে খবর দেয়।’’

অ্যাভ্রেন্সিয়ার পরিবার সূত্রে জানা গিয়েছে, কানপুর পুলিশ তাকে উদ্ধার করে সেখানকার একটি হাসপাতালে রাখে। তার পর খবর দেয় বাড়িতে। তাকে ২৯ তারিখ শিলিগুড়ির কাছে মাটিগাড়ার এক নার্সিংহোমে ভর্তি করা হয়েছে। মেয়েটির পরিবারকে দিয়ে এ দিন ওই এজেন্ট এবং বাড়ির মালিকের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দায়ের করায় শিলিগুড়ির লিগ্যাল এড ফোরাম। নার্সিংহোমের যে চিকিৎসক অ্যাভ্রেন্সিয়াকে, তিনি জানান, এক জায়গায় লিগামেন্ট ছিড়ে গিয়েছে। কোমর আর মেরুদণ্ডের সংযোগ স্থলে হাড় ভেঙেছে। অস্ত্রোপচার করতে হবে। না হলে অ্যাভ্রেন্সিয়ার সুস্থ হতে অনেক সময় লাগবে।



Tags:
Crime Assault Minor Girl Kanpurঅ্যাভ্রেন্সিয়া ওঁরাওকানপুর

আরও পড়ুন

Advertisement