Advertisement
২৩ জুলাই ২০২৪
West Bengal Panchayat Election 2023

বাঁকুড়ায় টহল শুরু বাহিনীর

বাঁকুড়ার পুলিশ সুপার বৈভব তিওয়ারি বলেন, “কেন্দ্রীয় বাহিনীর টহল দেওয়া শুরু হয়েছে। নিয়মিত টহলদারি চলবে। আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতির উপরে নজর রাখা হচ্ছে।”

central forces at bankura police station

বাঁকুড়া থানায় কেন্দ্রীয় বাহিনী। —নিজস্ব চিত্র

নিজস্ব সংবাদদাতা
বাঁকুড়া শেষ আপডেট: ২৪ জুন ২০২৩ ০৬:৪৪
Share: Save:

পঞ্চায়েত নির্বাচনকে মাথায় রেখে বাঁকুড়ায় টহল দেওয়া শুরু করল কেন্দ্রীয় বাহিনী। শুক্রবার বাঁকুড়া ও বিষ্ণুপুরের কয়েকটি গ্রামে কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ানেরা টহল দেন বলে পুলিশের দাবি। জেলা পুলিশ সূত্রে খবর, ঝাড়গ্রাম-বাঁকুড়া সীমানার বারিকুল থানা এলাকার সেরেঙসগড়া গ্রামে মোতায়েন থাকা সিআরপি-র এক কোম্পানিকে দিয়েই এ দিন টহল চালানো হয়। টহল শেষ সেরেঙসগড়ার শিবিরেই ফিরে যান জওয়ানেরা। বাঁকুড়ার পুলিশ সুপার বৈভব তিওয়ারি বলেন, “কেন্দ্রীয় বাহিনীর টহল দেওয়া শুরু হয়েছে। নিয়মিত টহলদারি চলবে। আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতির উপরে নজর রাখা হচ্ছে।” পুলিশ সূত্রে দাবি, আগামী দিনে নির্বাচন কমিশনের নির্দেশে জেলায় আরও বাহিনী আসতে পারে।

এ দিকে কেন্দ্রীয় বাহিনীর টহল নিয়ে কটাক্ষ করেছেন বিরোধীরা। সিপিএমের বাঁকুড়া জেলা সম্পাদক অজিত পতি বলেন, “খবরে ফলাও করে দেখানো হচ্ছে বাঁকুড়ায় কেন্দ্রীয় বাহিনী এসেছে। অথচ কোনও এলাকায় ঘুরেছে বলে দলগত ভাবে রিপোর্ট কিছু পেলাম না। কেন্দ্রীয় বাহিনী জেলায় এসে অদৃশ্য হয়ে থাকলে তো লাভ কিছু নেই। সন্ত্রাস কবলিত এলাকায় তাদের ঘোরানো হোক।” বিজেপির বাঁকুড়া সাংগঠনিক জেলা সভাপতি সুনীলরুদ্র মণ্ডল বলেন, “কোথাও কেন্দ্রীয় বাহিনীকে ঘুরতে দেখনি। তারা এসে থাকলেও আদৌ ঠিক ভাবে তাদের কাজে লাগানো হচ্ছে কি না, নির্বাচন কমিশনের তা নজর দেওয়া দরকার।” তৃণমূলের বাঁকুড়া সাংগঠনিক জেলা সভাপতি দিব্যেন্দু সিংহ মহাপাত্র বলেন, “কেন্দ্রীয় বাহিনী নিয়ে মাথা ঘামানো আমাদের কাজ নয়। আমরা মানুষের ঘরে ঘরে পৌঁছতেই এখন ব্যস্ত।”

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE