Advertisement
৩১ জানুয়ারি ২০২৩

স্টেশন থেকে অচৈতন্য যুবক উদ্ধার

স্টেশন থেকে এক যুবককে অচৈতন্য অবস্থায় উদ্ধার করল রেল পুলিশ। শুক্রবার সকালে রামপুরহাট স্টেশনের ২ নম্বর প্লাটফর্মে যুবকটিকে অচৈতন্য অবস্থায় উদ্ধার করে রামপুরহাট হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। প্রথম দিকে যুবকটির কোনও পরিচয় পাওয়া যায় নি।

রামপুরহাট হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অশোক কোনাই। শুক্রবার তোলা নিজস্ব চিত্র।

রামপুরহাট হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অশোক কোনাই। শুক্রবার তোলা নিজস্ব চিত্র।

নিজস্ব সংবাদদাতা
রামপুরহাট শেষ আপডেট: ১১ জুলাই ২০১৫ ০০:৩৬
Share: Save:

স্টেশন থেকে এক যুবককে অচৈতন্য অবস্থায় উদ্ধার করল রেল পুলিশ। শুক্রবার সকালে রামপুরহাট স্টেশনের ২ নম্বর প্লাটফর্মে যুবকটিকে অচৈতন্য অবস্থায় উদ্ধার করে রামপুরহাট হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

Advertisement

প্রথম দিকে যুবকটির কোনও পরিচয় পাওয়া যায় নি। পরে রামপুরহাট হাসপাতালে চিকিৎসা চলাকালীন যুবকটির অসংলগ্ন কথাবার্তায় শুধু জানা গিয়েছে, তাঁর নাম অশোক কোনাই। মুরারই থানার মহুরাপুর এলাকায় তাঁর বাড়ি। এলাকার ব্লক তৃণমূল সভাপতি বিনয় ঘোষ খোঁজ নিয়ে জানান, ওই যুবকটি কলকাতায় রাজমিস্ত্রির কাজ করেন। কাজ সেরে বাড়ি আসার পথে তিনি কোনও ভাবে অচৈতন্য হয়ে পড়েন। যুবকটির পরিবারকে খবর দেওয়া হয়েছে। রেল পুলিশের সাঁইথিয়া থানার আধিকারিক বিকাশ মুখোপাধ্যায় বলেন, ‘‘যুবকটিকে রামপুরহাট স্টেশনে মালদহগামী বর্দ্ধমান–মালদহ প্যাসেঞ্জার ট্রেন থেকে কে বা কারা অচৈতন্য অবস্থায় নামিয়ে দিয়েছেন। যুবকটির কাছ থেকে কোনও জিনিসপত্র পাওয়া যায়নি।’’ রামপুরহাট হাসপাতালের চিকিৎসক আনন্দ মণ্ডল বলেন, ‘‘যুবকটি ঘোরে রয়েছেন। প্রাথমিক চিকিৎসায় মনে হচ্ছে, তাঁকে মাদকজাত দ্রব্য মেশানো খাবার খাওয়ানো হয়েছে। যার ফলে এখন তিনি স্থিতিশীল অবস্থায় নেই। ২৪ ঘণ্টা পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে।’’

এ দিকে সম্প্রতি এক সপ্তাহ যাবৎ বিভিন্ন স্টেশনে রেলপুলিশ ও রেল সুরক্ষা বাহিনীর পক্ষ থেকে যৌথ ভাবে মাদক বিরোধী প্রচার চালান হয়। তারপরেও এই সমস্ত কেপমারির ঘটনায় রেলের যাত্রীদেরও সচেতনতা প্রয়োজন বলে মনে করছেন রেলের আধিকারিকরা।

Advertisement
(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.