Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৪ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

ইমাম ভাতা বাড়ানোর দাবিতেও সমর্থন তৃণমূলের

দু’দিন আগেই জমিয়তে উলেমায়ে হিন্দের সমাবেশে গিয়ে তিন তালাক প্রথা বহাল রাখার পক্ষে সওয়াল করেছিলেন রাজ্যের দুই মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় এবং ফ

নিজস্ব সংবাদদাতা
০৯ নভেম্বর ২০১৬ ০৪:১৭

দু’দিন আগেই জমিয়তে উলেমায়ে হিন্দের সমাবেশে গিয়ে তিন তালাক প্রথা বহাল রাখার পক্ষে সওয়াল করেছিলেন রাজ্যের দুই মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় এবং ফিরহাদ হাকিম। ইমাম সমাবেশে গিয়ে মঙ্গলবার ইমাম ও মোয়াজ্জিনদের ভাতা বৃদ্ধির দাবিতেও সায় দিলেন তৃণমূল সাংসদ এবং মুসলিম পার্সোনাল ল’বোর্ডের সদস্য সুলতান আহমেদ। তাঁর বক্তব্য, ‘‘রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায়েরও বেতন দেড় থেকে বেড়ে পাঁচ লাখ হয়েছে। আমরা সাংসদরাও সব সময় মনে মনে চাই আমাদের বেতন বাড়ুক। ইমামরাও যে ভাতা বৃদ্ধির দাবি করছেন, তা ঠিকই।’’

রাজ্যে প্রথম বার ক্ষমতায় এসে ইমাম ও মোয়াজ্জিনদের ভাতা দেওয়ার কথা ঘোষণা করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ইমামরা এখন মাসিক আড়াই হাজার এবং মোয়াজ্জিনরা এক হাজার টাকা করে ভাতা পান। কিন্তু বাজার দরের বৃদ্ধির কারণে ইমামদের সেই ভাতা বাড়িয়ে ১০ হাজার এবং মোয়াজ্জিনদের ৬ হাজার টাকা করার দাবি তোলা হয়েছে এ দিনের সমাবেশে। যে সরকারের কাছে এমন দাবি, সেই শাসক দলেরই সাংসদ সুলতানের সুর মেলানোর মধ্যে রাজনৈতিক উদ্দেশ্যই দেখতে পাচ্ছে বিরোধী কংগ্রেস এবং সিপিএম। বিজেপির মোকাবিলায় সংখ্যালঘু-দরদি অবস্থান নিয়ে তৃণমূল আসলে মেরুকরণের রাজনীতিই প্রকট করে তুলছে বলে মনে করছে বিরোধীরা।

রানি রাসমণি অ্যাভিনিউয়ে এ দিনের সমাবেশে সংখ্যালঘু যুব ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক মহম্মদ কামারুজ্জামান দাবি করেন, ‘‘অনেক ইমামই এখন নিয়মিত ভাতা পাচ্ছেন না। মুখ্যমন্ত্রীকে তাই বিষয়টি দেখতে বলব। জিনিসপত্রের দাম যা বেড়েছে, তাতে আড়াই হাজার টাকায় এখন সংসার আর চালাতে পারছেন না ইমামরা। তাই ইমামদের ভাতা বাড়িয়ে মাসে ১০ হাজার এবং মোয়াজ্জিনদের ৬ হাজার টাকা করার দাবি জানাচ্ছি মুখ্যমন্ত্রীর কাছে।’’ রেড রোডে নমাজ পড়ান যে ইমাম, সেই কারি ফজলুর রহমানও ভাতা বৃদ্ধির দাবিতে সরব হওয়ার পরে সুলতান তাতে সম্মতিই জানান। তবে দ্বিতীয় বার মমতার সরকার ক্ষমতায় আসার ৬ মাসের মধ্যেই কেন ইমামদের ভাতা বাড়ানোর এমন দাবি তোলা হচ্ছে, তা নিয়ে মৃদু উষ্মাও প্রকাশ করেন তৃণমূল সাংসদ। পাশাপাশিই তিনি বলেন, ‘‘রাজ্য সরকারের প্রতিনিধি হিসেবে এখানে আসিনি। তবে আপনাদের দাবি সঠিক জায়গায় পৌঁছে দেব। এটা রাজ্য সরকারের নজরে আসবে।’’ সমাবেশের উদ্যোক্তাদের সঙ্গে তিন তালাক প্রথার পক্ষেই সওয়াল করেছেন তিনি। প্রসঙ্গত, তালাক-বিতর্কে কেন্দ্রীয় সরকারের উপরে চাপ সৃষ্টি করতে ২০ নভেম্বর মুসলিম পার্সোনাল ল’বোর্ডের তরফে পার্ক সার্কাস ময়দানে সমাবেশেরও অন্যতম উদ্যোক্তা সুলতান।

Advertisement

আরও পড়ুন

Advertisement