Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৯ মে ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

নাভালনির মুক্তি চেয়ে ধৃত ৩০০০

অগস্টে অসুস্থ হয়ে পড়ায় বিরোধী নাভালনিকে চিকিৎসার জন্য জার্মানিতে নিয়ে যাওয়া হয়েছিল।

সংবাদ সংস্থা
মস্কো ২৫ জানুয়ারি ২০২১ ০৫:৪৫
Save
Something isn't right! Please refresh.
 এক বিক্ষোভকারীকে টেনে-হিঁচড়ে নিয়ে যাচ্ছে পুলিশ। রয়টার্স

এক বিক্ষোভকারীকে টেনে-হিঁচড়ে নিয়ে যাচ্ছে পুলিশ। রয়টার্স

Popup Close

বিরোধী নেতা অ্যালেক্সেই নাভালনির মুক্তির দাবিতে উত্তাল রাশিয়া। প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের কড়া সমালোচক এই নেতাকে অবিলম্বে ছেড়ে দেওয়ার দাবিতে শনিবার মস্কো-সহ রাশিয়ার বিভিন্ন জায়গায় বিক্ষোভ দেখান লক্ষ-লক্ষ মানুষ। পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষেও জড়ান বিক্ষোভকারীরা। দেশ জুড়ে ৩ হাজারেরও বেশি বিক্ষোভকারীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

অগস্টে অসুস্থ হয়ে পড়ায় বিরোধী নাভালনিকে চিকিৎসার জন্য জার্মানিতে নিয়ে যাওয়া হয়েছিল। অভিযোগ ওঠে বিরোধী এই নেতাকে বিষ দিয়ে খুনের চেষ্টা করেছিল পুতিন প্রশাসন। সোভিয়েত আমলে তৈরি নার্ভ এজেন্ট নোভিচক প্রয়োগ করা হয়েছিল তাঁর উপরে। তবে সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করেছে ক্রেমলিন। গত ১৭ জানুয়ারি সুস্থ হয়ে জার্মানি থেকে দেশ ফেরা মাত্রই নাভালনিকে গ্রেফতার করে রুশ পুলিশ। তাঁকে ৩০ দিনের জেলে পাঠায় আদালত। প্রতিবাদে অনুগামীদের বিক্ষোভ-আন্দোলনে নামার ডাক দেন পুতিন-বিরোধী নাভালনি। কিন্তু বিক্ষোভে না নামার হুঁশিয়ারি দিয়েছিল ক্রেমলিন।

এখন সাইবেরিয়া-সহ বেশ কিছু জায়গায় তাপমাত্রা মাইনাস ৫০ ডিগ্রির কাছাকাছি। সেই ঠান্ডা এবং ক্রেমলিনের রক্তচক্ষুকে উপেক্ষা করে নাভালনির মুক্তির দাবিতে পথে নামেন বিক্ষোভকারীরা। তাঁদের মুখে ছিল পুতিন-বিরোধী স্লোগান। রাশিয়ার বিক্ষোভ-আন্দোলন পর্যবেক্ষণকারী সংস্থা ওভিডি-ইনফো জানিয়েছে, রাশিয়ার ১০০টি শহরে বিক্ষোভ-আন্দোলন হয়। মস্কোর পুশকিন স্কোয়ারে বিক্ষোভ চরম আকার নেয়। সেখানে বিক্ষোভকারীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ বেধে যায়। পুলিশকে লক্ষ্য করে তুষারের বল ছোড়েন বিক্ষোভকারীরা। অভিযোগ, নাভালনি-সমর্থকদের ছত্রভঙ্গ করতে বেধড়ক লাঠি চালায় পুলিশ। টেনে-হিঁচড়ে বিক্ষোভকারীদের তোলা হয় পুলিশের গাড়িতে। মস্কো থেকে বহু বিক্ষোভকারীকে গ্রেফতার করে পুলিশ। আটক করা হয় নাভালনির স্ত্রী ইউলিয়াকে। পরে অবশ্য তাঁকে ছেড়ে দেওয়া হয়। পুলিশ-বিক্ষোভকারী সংঘর্ষ হয় সেন্ট পিটার্সবার্গেও। নাভালনির অনুগামীদের হাত-পা ধরে টেনে হিঁচড়ে পুলিশের গাড়িতে তোলা হয় সাইবেরিয়ার ইয়াকুতস্ক শহরেও।

Advertisement

বিক্ষোভকারীদের উপরে রুশ পুলিশের মারধরের তীব্র নিন্দা করেছে আমেরিকা। ওয়াশিংটনের দাবি, নাভালনি-অনুগামীদের ঠেকাতে কঠোর কৌশল নিচ্ছে রাশিয়া। নাভালনি এবং আটক বিক্ষোভকারীদের অবিলম্বে মুক্তি দেওয়ার দাবি জানিয়েছে তারা।

ওভিডি-ইনফোর তথ্য অনুযায়ী গোটা রাশিয়ায় তিন হাজার ২৯৬ জন বিক্ষোভকারীকে আটক করা হয়েছে। মস্কো থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে ১ হাজার ২৯৪ জন নাভালনি-অনুগামীকে। মস্কোর এক বিক্ষোভকারী আন্দ্রেই গোরকভ বলেন, ‘‘পরিস্থিতি দিন দিন খারাপ হচ্ছে। দেশে আইন বলে কিচ্ছু নেই। আমরা চুপ করে বসে থাকলে পরিস্থিতি আরও খারাপ হবে।’’ আগামী সপ্তাহের ছুটির দিনেও বিক্ষোকারীদের পথে নামার ডাক দিয়েছেন নাভালনির এক সহকারি।



Something isn't right! Please refresh.

Advertisement