Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৪ মে ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

স্টকহলমের রাস্তায় ট্রাক হামলা, পাঁচ জনের মৃত্যু

দুপুরের ব্যস্ত সময়। শহরের প্রাণকেন্দ্রে শপিং সেন্টারে তখন থিকথিক করছে ভিড়। এক চেহারা বাইরেও। এ পর্যন্ত সব ঠিকই ছিল! আচমকাই কোথা থেকে একটা

সংবাদ সংস্থা
স্টকহলম ০৮ এপ্রিল ২০১৭ ০৩:৩৬
Save
Something isn't right! Please refresh.
উদ্ধার: ট্রাক-হামলার পরে অ্যাম্বুল্যান্সে তোলা হচ্ছে আহতকে। শুক্রবার স্টকহলমে। এপি

উদ্ধার: ট্রাক-হামলার পরে অ্যাম্বুল্যান্সে তোলা হচ্ছে আহতকে। শুক্রবার স্টকহলমে। এপি

Popup Close

দুপুরের ব্যস্ত সময়। শহরের প্রাণকেন্দ্রে শপিং সেন্টারে তখন থিকথিক করছে ভিড়। এক চেহারা বাইরেও। এ পর্যন্ত সব ঠিকই ছিল! আচমকাই কোথা থেকে একটা ট্রাক বেরিয়ে এসে নির্বিচারে পিষে দিতে শুরু করল পথচারীদের। প্রাণের ভয়ে বাকিরা তখন দিশাহারা হয়ে ছুটতে শুরু করেছেন।

আজ এই ভয়াবহ দৃশ্যের সাক্ষী রইল মধ্য স্টকহলমের অন্যতম প্রধান রাস্তা কুইন স্ট্রিট। স্থানীয় সময় দুপুর তিনটে নাগাদ এই ঘটনাটি ঘটে। এখনও পর্যন্ত পাঁচ জনের মৃত্যু হয়েছে। আহত বেশ কিছু পথচারী। ঘটনাস্থলের খুব কাছেই ভারতীয় দূতাবাস। সেখান থেকে অবশ্য কোনও ক্ষয়ক্ষতির খবর মেলেনি। এই ঘটনার সঙ্গে সন্ত্রাসের কোনও যোগ আছে কি না, তা এখনও স্পষ্ট নয়।

তবে ইদানীং হামলার ধরন বদলেছে জঙ্গিরা। কারণ বোমা, গুলি, আগ্নেয়াস্ত্র— এ সব নিয়ে হামলায় সমস্যা হতে পারে। সে ক্ষেত্রে ট্রাক বা লরি নিয়ে হামলা চালানোটা অনেক সহজ হয়। শুধু হাতে একটা স্টিয়ারিং থাকলেই বহু মানুষকে একসঙ্গে পিষে মারা যায়। ফলে এই সহজ রাস্তাটাই এখন বেছে নিচ্ছে জঙ্গিরা।

Advertisement

গত বছর জুলাইয়ে প্যারিসের নিস শহরে ট্রাক নিয়ে হামলা চালিয়েছিল জঙ্গিরা। পরে জার্মানির বার্লিন ও ইজরায়েলের জেরুজালেমও একই ভাবে হামলা হয়েছে। স্টকহলমেও তাই সন্ত্রাসের আশঙ্কা থাকছেই।

আরও পড়ুন:​ ‘শিক্ষা দিতে’ হানা ট্রাম্পের

এমনকী, সুইডেনের প্রধানমন্ত্রী স্টেফান লফভেনও একে ‘সন্ত্রাসবাদী হামলা’ আখ্যা দিয়ে জানিয়েছেন, এই ঘটনায় জড়িত সন্দেহে এক জনকে আটকও করা হয়েছে। তবে এখনও পর্যন্ত কোনও গোষ্ঠী এর দায় নেয়নি।

পুলিশ জানিয়েছে, এ দিন দুপুরের দিকে ঘটনার কথা জানিয়ে একটি ফোন আসে। তার পরেই ঘটনাস্থলে পৌঁছয় পুলিশ। প্রাথমিক তদন্তে পুলিশ জেনেছে, যে ট্রাকটি নিয়ে হামলা চালানো হয়েছে, সেটি একটি সুইডিশ মদ প্রস্তুতকারক সংস্থার। সকালের দিকে যখন রেস্তোরাঁয় মদ সরবরাহের জন্য ওই ট্রাকটি বেরিয়েছিল, তখন তা ছিনতাই করে এক ব্যক্তি। তার পর দুপুরে সেই ট্রাকই পিষে দেয় পথচারীদের।

সোশ্যাল মিডিয়াতেও ছড়িয়ে পড়েছে ঘটনার কিছু ফুটেজ। তাতে দেখা গিয়েছে, প্রাণের ভয়ে দৌড়চ্ছেন পথচারীরা। শপিং সেন্টারের বাইরেটা ঢেকে গিয়েছে কালো ধোঁয়ায়। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানাচ্ছেন, দৈত্যাকার একটি ট্রাক এলোপাথাড়ি ভাবে পিষে দিচ্ছে পথচারীদের। আর প্রাণ হাতে করে ছুটছে লোকজন। চারিদিকে তখন শুধু হাহাকার আর কান্না!



Something isn't right! Please refresh.

আরও পড়ুন

Advertisement