মাস কয়েক ধরে হু হু করে বেড়েছে পেট্রল-ডিজেলের দাম। প্রায় নিয়মিতই গড়েছে নতুন রেকর্ড। ফলে দেশ জুড়ে প্রবল সমালোচনার মুখে নরেন্দ্র মোদী সরকার। এই অবস্থায় বুধবার জল্পনা ছড়ায়, কেন্দ্র নাকি তেলে লিটারে ১ টাকা করে ক্ষতি ঘাড়ে নিতে নির্দেশ দিয়েছে তিন রাষ্ট্রায়ত্ত তেল সংস্থাকে। এই কথা ছড়ানোর কারণ, বিশ্ব বাজারে তেলের দর বাড়লেও, ২ এপ্রিলের পরে ভারতে পেট্রল-ডিজেল অল্প কমেছে, একই থেকেছে বা সামান্য বেড়েছে।

বুধবার ইন্ডিয়ান অয়েলের চেয়ারম্যান সঞ্জীব সিংহ ও হিন্দুস্তান পেট্রোলিয়ামের সিএমডি এম কে সুরানার অবশ্য দাবি, তাঁরা এমন কোনও ফরমান পাননি। তেলমন্ত্রী ধর্মেন্দ্র প্রধান এ নিয়ে কোনও প্রশ্ন শুনতেই চাননি। তবে এই জল্পনার জেরে শেয়ার বাজারে সংস্থাগুলির দর অনেকটা পড়ে যায়।

সংশ্লিষ্ট মহলের অনেকে যদিও জল্পনা ওড়াতে নারাজ। তাঁদের মতে, সাম্প্রতিক রাজনৈতিক পরিস্থিতিতে এই নির্দেশ অসম্ভব নয়। কারণ, দেশে জ্বালানি নাগাড়ে দামি হওয়ায় ক্ষোভ ছড়াচ্ছে সব মহলে। সরকারকে বিঁধে চলেছে কংগ্রেস-সহ বিরোধীরা। তার উপরে উত্তপ্রদেশের উপ-নির্বাচনে হার, দলিত আন্দোলন, কর্নাটকে আসন্ন বিধানসভা ভোট ইত্যাদি নিয়ে চাপে কেন্দ্র। ওই মহলের মতে, এর মধ্যে তেল নতুন করে সকলের ক্ষোভ উস্কে দিক, তা চাইছে না সরকার।