Advertisement
২৩ জুন ২০২৪
Indian Railways

Indian railways: রেল যাত্রীদের জন্য সুখবর, ফের বিনামূল্যে বালিশ-কম্বল, করোনা কমতে ফিরছে পর্দাও

অতিমারির অতি-ছোঁয়াচে প্রকৃতির জন্যই ট্রেনে কম্বল, বালিশ, তোয়ালে, চাদর দেওয়ার নিয়ম তুলে দেয়। এ বার ফিরছে সেই চিরাচরিত ব্যবস্থা।

হারানো সুবিধা ফিরছে।

হারানো সুবিধা ফিরছে। ফাইল চিত্র

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ১০ মার্চ ২০২২ ১৬:১৬
Share: Save:

দেশে করোনা সংক্রমণ শুরু হতেই ভারতীয় রেল শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত বগিতে বালিশ, কম্বল, চাদর, তোয়ালে দেওয়া বন্ধ করে দিয়েছিল। একই সঙ্গে ট্রেনের বগিতে পর্দার ব্যবহারও বন্ধ হয়ে যায়। করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হতেই ফের সেই পদ্ধতি ফিরে আসছে। বৃহস্পতিবার রেল মন্ত্রক ও রেল বোর্ড যৌথ বিবৃতিতে এ কথা জানিয়েছে। বলা হয়েছে, বৃহস্পতিবার থেকেই এই পরিষেবা শুরু হয়ে যাবে।

অতিমারির অতি-ছোঁয়াচে প্রকৃতির জন্যই ট্রেনে কম্বল, বালিশ, তোয়ালে, চাদর দেওয়ার নিয়ম তুলে দেয়। এই সংক্রান্ত বিজ্ঞপ্তি দেওয়া হয় ২০২০ সালের ১১ মে। এর পরে করোনা পরিস্থিতি কিছুটা স্বাভাবিক হওয়ার পর মনে করা হয়েছিল পুরনো নিয়ম ফিরে আসবে। কিন্তু ২০২১ সালের ৫ মে ফের একটি বিজ্ঞপ্তি দিয়ে ওই পরিষেবা বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত জানানো হয়। অবশেষে পুরনো দিন ফিরছে। বৃহস্পতিবার দেশের সব রেলওয়ে জোনকে বিজ্ঞপ্তি পাঠিয়ে যাত্রীদের পুরনো পরিষেবা ফিরিয়ে দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে রেল মন্ত্রক।

শীতের সময়ে রেল কম্বল, চাদর না দিলেও তার জন্য বিকল্প ব্যবস্থা করেছিল রেল। করোনাকালে ট্রেন সফরের সময় যাঁরা বালিশ, চাদর, কম্বল ইত্যাদি নিতে চান তাঁদের জন্য রেল বিশেষ ব্যবস্থা চালু করে। প্রথমে দিল্লি থেকে শুরু হলেও পরে অনেক বড় স্টেশনেই এই সুবিধা মেলে। এর জন্য যাত্রীদের মাথা পিছু দিতে হচ্ছিল ৩০০ টাকা। তার বিনিময়ে রেল দিচ্ছিল একটি কম্বল, একটি বিছানায় পাতার চাদর, একটি বালিশ, বালিশের কভার, একবার ব্যবহার করেই ফেলে দেওয়া যায় এমন একটি ব্যাগ, টুথপেস্ট, টুথব্রাশ, চুলে মাখার তেল, চিরুনি, স্যানিটাইজার, পেপারসোপ এবং টিস্যু পেপার। এর চেয়ে সস্তার একটি কিটও পাওয়া যায়। তার দাম করা হয় ১৫০ টাকা। তাতে শুধু একটি কম্বল দেওয়া হয়। এই কিটগুলি কেনার পরে তা আর রেলকে ফেরত দেওয়ার ব্যাপার ছিল না। বলা হয়েছিল, কেউ চাইলে বাড়িতেও নিয়ে যেতে পারেন বা ট্রেনের ভিতরে নির্দিষ্ট জায়গায় ফেলে দিতে পারেন।

তবে এ সব এখন অতীত। ফিরে এল অতীতের সেই দিন। আবার মিলবে কাগজের প্যাকেটে বিছানার সরঞ্জাম। সেই সঙ্গে বাতানুকূল বগির ভিতরে এবং জানলায় ঝুলবে পর্দা।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

Indian Railways train COVID19 Coronavirus
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE