• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

চিনি উৎপাদনে ভাটা

sugar mills
প্রতীকী ছবি।

উৎপাদন যে কমতে পারে তার আভাস আগেই দিয়েছিল দেশের চিনি শিল্প মহল। বাস্তবে হচ্ছেও তা-ই। অক্টোবর থেকে শুরু হওয়া বিপণন মরসুমে ১৫ জানুয়ারি পর্যন্ত উৎপাদন হয়েছে ১.০৮ কোটি টনের কিছু বেশি চিনি। যা এক বছর আগের তুলনায় প্রায় ২৬.১৫% কম। গত বছর একই সময়ে ১.৪৭ কোটি টনের বেশি উৎপাদন হয়েছিল।

চিনি উৎপাদনে দেশের বৃহত্তম রাজ্য মহারাষ্ট্র। গত সাড়ে তিন মাসে সেখানেই উৎপাদন হয়েছে অর্ধেক। উৎপাদন ধাক্কা খেয়েছে আর এক গুরুত্বপূর্ণ রাজ্য কর্নাটকেও। কমেছে ১৮.১৬%। উত্তরপ্রদেশে অবশ্য সামান্য বেড়েছে। সূত্রের খবর, উৎপাদন কমার অন্যতম বড় কারণ বহু চিনিকল বন্ধ থাকা। গত বছর যেখানে এই সময়ে ১৮৯টি চিনিকলে পুরো দমে উৎপাদন হয়েছে, সেখানে এ বছর চালু রয়েছে ১৩৯টি চিনিকল।

চিনিকলগুলির মঞ্চ আইএসএমএ পূবার্ভাসে জানিয়েছিল, চলতি মরসুমে (অক্টোবর-সেপ্টেম্বর) উৎপাদন কমে ২.৬ কোটি টন হতে পারে। গত বছর হয়েছিল ৩.৩১ কোটি টন।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন