• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

অ্যামাজ়নের লগ্নি জল্পনা, শেয়ারে লাভ মুকেশের

Mukesh Ambani
—ফাইল চিত্র।

ফের লগ্নি টানার দৌড়ে মুকেশ অম্বানী। জিয়ো প্ল্যাটফর্মের পরে তুরুপের তাস রিলায়্যান্স রিটেল ভেঞ্চার্স (আরআরভিএল)। খুচরো ব্যবসা দেখাশোনার যে শাখাকে দিয়ে ফিউচার গোষ্ঠীর খুচরো বিপণন-সহ সংশ্লিষ্ট ব্যবসা কেনার কথা মুকেশের রিলায়্যান্স ইন্ডাস্ট্রিজ়ের (আরআইএল)। বুধবার সেটির ১.৭৫% অংশীদারি মার্কিন প্রাইভেট ইকুইটি সংস্থা সিলভার লেককে বেচার কথা জানিয়েছিল তারা। বৃহস্পতিবার দিনভর জল্পনা ছড়ায়, এ বার মুকেশ হাত ধরছেন রিটেল দৈত্য অ্যামাজ়নের। আমেরিকার বহুজাতিকটিকে না কি আরআরভিএলের ৪০% পর্যন্ত অংশীদারি বেচে ঘরে তুলবেন প্রায় ১.৫০ লক্ষ কোটি টাকা (২০ বিলিয়ন ডলার)। বিশেষজ্ঞদের দাবি, এতে যা হওয়ার সেটাই হয়েছে। একটি লগ্নির ঘোষণা ও অপরটির জল্পনার জেরে আরআইএলের শেয়ার দর এ দিন এত চড়েছে যে, বাজারে সেগুলির মোট দাম ১৫ লক্ষ কোটি টাকা ছাড়িয়েছে। এর আগে যা দেখেনি কোনও ভারতীয় সংস্থা।

বিএসই-তে এক সময়ে ৮.৪৫% উঠে আরআইএলের শেয়ার দর ২৩৪৩.৯০ টাকা হয়। শেষে থামে ২৩১৪.৬৫ টাকায়। মূলত এই দৌড়ে ভর করেই এ দিন সেনসেক্স ওঠে ৬৪৬.৬০ অঙ্ক।

তবে অ্যামাজ়নের লগ্নির খবরটি সত্যি না কি জল্পনা, সারা দিন তা বোঝার চেষ্টা চলেছে নেট দুনিয়ায়। রিলায়্যান্স অবশ্য দিনভর চুপ ছিল। শেয়ার বাজার বন্ধের পরে আসা সংস্থার এক বিবৃতিতে তারা এ রকম খবর ঠিক কিনা তা যাচাইয়ের দায় চাপিয়েছে সংবাদ মাধ্যমের ঘাড়ে। যদিও কিছুটা ধন্দ তৈরি করে সেখানেই তারা একবার বলেছে ওই জল্পনা ঠিক নয়, পরক্ষণেই লিখেছে যে লেনদেনের কথা চলছে বা শেষ হয়নি, তা নিশ্চিত করতে বা অস্বীকার করতে পারে না সংস্থা। তবে সম্ভাবনা সব সময়ই খতিয়ে দেখে। পরে নিয়ম মেনে সব কিছু নিয়ন্ত্রক সেবি ও শেয়ার বাজারকে জানানো হয়। আগামী দিনেও হবে। একই সঙ্গে জানিয়েছে, নীতিগত ভাবে তারা এমন জল্পনা নিয়ে মন্তব্য করে না। অ্যামাজ়ন প্রতিক্রিয়া দেয়নি।

বাজারে জল্পনা, জিয়ো প্ল্যাটফর্মে লগ্নিকারী সংস্থাগুলিকে আরআরভিএলের অংশীদারি বিক্রি করতে পারে আরআইএল। কারণ ফিউচারের ব্যবসা কেনার কথা ঘোষণার দিনেই খুচরো ব্যবসাকে ছড়াতে জিয়োকে কাজে লাগানোর ইঙ্গিত দিয়েছিল তারা।

পরোক্ষে অবশ্য গত অগস্টে ফিউচার গোষ্ঠীর ১.৩% অংশীদারি কিনেছে অ্যামাজ়ন। এরপর তারা ফিউচার রিটেল স্টোর্সের অনলাইনে কেনাকাটার স্বীকৃতি পাওয়ায় সেই জোট জোরদার হয়। তবে আরআইএলের অধিগ্রহণ ফিউচারে অ্যামাজ়নের সেই লগ্নিতে কী প্রভাব ফেলবে, তা অস্পষ্ট। সব পক্ষেরই এ নিয়ে মুখে কুলুপ।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন