• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

মাস চারেকের শিশুর মৃত্যু ঘিরে উত্তেজনা বিসি রায় হাসপাতালে, আত্মীয়দের বিক্ষোভ

dead child
আইসিইউ-তে ভর্তি করালেও প্রাণে বাঁচানো যায়নি চার মাসের অঙ্কনকে। —নিজস্ব চিত্র।

Advertisement

জ্বর হওয়ায় শিশুপুত্রকে হাসপাতালে ভর্তি করিয়েছিলেন মা-বাবা। কিন্তু, সেরে ওঠা তো দূরের কথা, ধীরে ধীরে তার শারীরিক অবস্থার আরও অবনতি হতে থাকে। আইসিইউ-তে ভর্তি করালেও প্রাণে বাঁচানো যায়নি শিশুটিকে। ওই পরিবারের অভিযোগ, চিকিৎসার গাফিলতিতেই মারা গিয়েছে তাদের ছেলে। ওই শিশুর মৃত্যুকে কেন্দ্র করে উত্তেজনা ছড়াল বিসি রায় হাসপাতালে। পরে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

সোমবার রাতে ঘটনাটি ঘটেছে ফুলবাগান এলাকায় বিসি রায় হাসপাতাল চত্বরে। পুলিশ জানিয়েছে, মাস চারেকের মৃত ওই শিশুর নাম অঙ্কন তরফদার।

কেষ্টপুর মহিষগোট ঘোষপাড়ার বাসিন্দা অঙ্কনের মা-বাবার অভিযোগ, গত সোমবার জ্বর এসেছিল তাঁদের ছেলের। সে জন্য তাকে হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছিল। কিন্তু, তার অবস্থার উন্নতি হয়নি। মৃতের বাবা সন্দীপ তরফদার বলেন, “গত সোমবার জ্বর নিয়ে ছেলেকে হাসপাতালে ভর্তি করেছিলাম। শনিবার তাকে সেখান থেকে তাকে আইসিইউতে নিয়ে রাখেন চিকিৎসকেরা।”

সারা দুনিয়ার খবরাখবর সম্পর্কিত এই তথ্যগুলি জানেন কি?

মৃত ওই শিশুটির মা সঙ্গীতা তরফদার বলেন, “হাসপাতালে গিয়ে দেখি আমার বাচ্চা মারা গিয়েছে। ওর চোখ-মুখ উল্টে গিয়েছিল।”

আরও পড়ুন: ‘ফ্রি’ হেলমেট পেতে গিয়ে বেহাত লাইসেন্স!

আরও পড়ুন: পরীক্ষা শেষ হতেই টিচার্স রুমে চকলেট বোমা ছুড়ল পরীক্ষার্থীরা!

শিশুটির মৃত্যুর খবর শুনে ক্ষোভে ফেটে পড়েন মৃতের পরিবারের লোকজনরা। চিকিৎসার গাফিলতির অভিযোগে হাসপাতালেই বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন তাঁরা। পরিস্থিতি সামলাতে ফুলবাগান থানায় খবর দেন হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। পুলিশ পৌঁছলে তাদের ঘিরেও বিক্ষোভ দেখাতে থাকেন মৃতের পরিজনেরা। হাসপাতালে থাকা অন্যান্য শিশুর আত্মীয়েরাও বিক্ষোভ দেখান। পরে বিশাল পুলিশ বাহিনী গিয়ে পরিস্থিতি সামাল দেয়। ফুলবাগান থানার পুলিশ জানিয়েছে, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে হাসপাতাল চত্বরে আরও পুলিশকর্মী মোতায়েন করা হয়।

(কলকাতা শহরের রোজকার ঘটনার বাছাই করাবাংলা খবরপড়তে চোখ রাখুন আমাদেরকলকাতাবিভাগে।)

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন