ম্যাথিউ-এর ফোনের রহস্যভেদে এ বার পেশাদার হ্যাকারদের সাহায্য নেবে সিবিআই। তদন্তকারীদের দাবি, নারদ তদন্তে ম্যাথিউ স্যামুয়েলের আই-ফোন হল চাবিকাঠি। আর সেই ফোনে থাকা আঠাশ মিনিটের ভিডিয়োর ফোল্ডার খোলা না গেলে এই তদন্ত শেষ করা সম্ভব নয়।

সেই কারণেই এ বার মার্কিন মুলুকের তিন পেশাদার হ্যাকারকে ম্যাথিউ-এর ফোনের পাসওয়ার্ড ভাঙার জন্য নিয়োগ করল কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা। এর আগে সোমবারই সিবিআইকে অ্যাপল ইনকরপোরেটেড সাফ জানিয়ে দিয়েছে যে, তাদের সংস্থা ম্যাথিউ-এর ফোনের কোড বা পাসওয়ার্ড দেবে না সিবিআইকে। অ্যাপলের দাবি, তারা ক্রেতার ব্যক্তিগত গোপনীয়তাকে সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব দেয়। সেই নীতি অনুসারেই এই তথ্য তারা সিবিআই তদন্তকারীদের জানাতে পারবে না।

অ্যাপল পাসওয়ার্ড দিয়ে সাহায্য করবে না, এমন আশঙ্কা সিবিআইয়ের আগেই ছিল। আর সেই কারণেই তারা পরিকল্পনা করেছিল, পেশাদার হ্যাকার নিয়োগের। হাইকোর্টকেও আগে এই মর্মে এই গোয়েন্দা সংস্থা জানিয়েছিল যে, প্রয়োজনে তাঁরা প্রযুক্তিবিদদের সাহায্য নেবেন। আদালত সেই আবেদনে সায় দিয়েছিল। সেই নির্দেশকে কাজে লাগিয়েই পেশাদার হ্যাকার দিয়ে ম্যাথিউ-এর ফোল্ডার খোলার চেষ্টায় গোয়েন্দারা।

আরও পড়ুন: ম্যাথিউ-এর ফোনের পাসওয়ার্ড সিবিআইকে দিল না অ্যাপল

আরও পড়ুন: সল্টলেকের বাড়িতে মধুচক্র, উদ্ধার ৬ নাবালিকা

সিবিআই সূত্রে জানা গিয়েছে, বিদেশ মন্ত্রকের কাছ থেকেই এই হ্যাকারদের হদিশ পেয়েছেন তারা। এর আগে একাধিক বার এই হ্যাকাররা ভারত সরকারের বিভিন্ন কাজে সাহায্য করেছেন। তাই তাঁদের অতীত সাফল্যের কথা মাথায় রেখেই এই সিদ্ধান্ত। আর মার্কিন এই হ্যাকারদের সাফল্যর উপর নির্ভর করে রয়েছে সিবিআই গোয়েন্দাদের নারদ-তদন্তে সাফল্য।