Advertisement
Back to
Presents
Associate Partners
Lok Sabha Election 2024

ঠাসা ভিড়, তৃণমূলকে বিঁধে গেলেন ‘মহাগুরু’

ঝাড়গ্রাম লোকসভা আসনের বিজেপি প্রার্থী প্রণত টুডুকে নিয়ে চারদিক খোলা গাড়িতে রোড শো করেন তিনি। কুলটিকরি বাজারের রাস্তার দু’ধারে মানুষের ভিড় সামলাতে নাজেহাল হয় পুলিশ।

বিজেপির প্রার্থী জন্য রোড শো-য় মিঠুন।

বিজেপির প্রার্থী জন্য রোড শো-য় মিঠুন। নিজস্ব চিত্র।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কুলটিকরি, রান্টুয়া শেষ আপডেট: ২০ মে ২০২৪ ০৮:৩৯
Share: Save:

গেরুয়া প্রচারে এসে নাম না করে তৃণমূলের কড়া সমালোচনা করলেন ‘মহাগুরু’ মিঠুন চক্রবর্তী।

রবিবার দুপুরে ও বিকেলে গোপীবল্লভপুর ও নয়াগ্রাম বিধানসভায় মিঠুনের জোড়া কর্মসূচি ছিল। গোপীবল্লভপুর বিধানসভার অন্তর্গত সাঁকরাইল ব্লকের কুলটিকরি বাজারে রোড শো করেন মিঠুন। বিকেলে নির্বাচনী সভা করেন নয়াগ্রাম বিধানসভার বেলিয়াবেড়া থানার রান্টুয়ার জোড়াকুসমা মাঠে। সেখানে নাম না করে তৃণমূলকে গরু চোর, কয়লা চোর, পড়াশোনা চোরের দল বলে বেঁধেন তিনি। এদিন দুপুর পৌনে ১টায় কুলটিকরি মাঠে কপ্টারে নামেন মিঠুন। পরণে সাদা পাঠান স্যুট, চোখে রোদ চশমা। তাঁকে দেখার জন্য মাঠের চার পাশে থিকথিকে ভিড় উপচে পড়েছিল।

২০২৪ লোকসভা নির্বাচনের সমস্ত খবর জানতে চোখ রাখুন আমাদের 'দিল্লিবাড়ির লড়াই' -এর পাতায়।

চোখ রাখুন

ঝাড়গ্রাম লোকসভা আসনের বিজেপি প্রার্থী প্রণত টুডুকে নিয়ে চারদিক খোলা গাড়িতে রোড শো করেন তিনি। কুলটিকরি বাজারের রাস্তার দু’ধারে মানুষের ভিড় সামলাতে নাজেহাল হয় পুলিশ। এক জায়গায় আদিবাসী লোকশিল্পীরা ধামসা মাদল বাজাচ্ছিলেন। মিঠুনও গাড়িতেই বাজনার তালে নাচতে শুরু করেন। দু’পাশের লোকজনকে প্রণতকে ভোট দেওয়ার জন্য হাত নেড়ে ইশারাও করেন মহাগুরু। পঞ্চম শ্রেণির পড়ুয়া নম্রতা সিং মিঠুনের কাছে অটোগ্রাফের আব্দার করায় তিনি জানান, রোড শো সেরে ফেরার সময় অটোগ্রাফ দেবেন। ‘মহাগুরু’ কথা রাখায় আপ্লুত নম্রতার মা নবনীতা সিং বলেন, ‘‘উনি যে মনে করে মেয়েকে অটোগ্রাফ দেবেন আশা করিনি।’’ গোহালডিহার বিজেপি কর্মী রমেশ সিং বলেন, ‘‘মহাগুরুকে দেখার জন্য আশেপাশের গ্রামের হাজার-হাজার মানুষ এদিন এসেছিলেন।’’ কপ্টার নামার মাঠের ধারে ফুচকা বিক্রেতা সনাতন সাউ বলেন, ‘‘অর্ধেক ফুচকা বিক্রি হয়ে গিয়েছে।’’ পরে কপ্টারে রান্টুয়ায় উড়ে যান মিঠুন।

সেখানে একটি অতিথিশালায় খাওয়াদাওয়া ও বিশ্রাম সেরে বিকেলে সভায় হাজির হন। দর্শকদের অনুরোধে রোদ চশমা খুলে বক্তৃতা শুরু করেন। তৃণমূলের নাম না করে বলেন, ‘‘ওদের জন্ম মিথ্যা লগ্ন আর দুর্নীতি রাশিতে। সিএএ নিয়ে ওরা মিথ্যে কথা বলছে। ওদের কথা বিশ্বাস করবেন না। সিএএ নাগরিকত্ব কেড়ে নেওয়ার আইন নয়। এটা নাগরিকত্ব দেওয়ার আইন।’’ মহাগুরুর আবেদন, ‘‘বিজেপিতে যোগ দিন, বিজেপিকে ভোট দিন। তারপর দেখুন একটা সুন্দর বাংলা আপনাদের উপহার দেব। এটাই মোদী ম্যাজিক। এটাই মোদী গ্যারান্টি।’’

মিঠুন দাবি করেন, ক্যাগ রিপোর্ট অনুযায়ী ২ লক্ষ ৩০ হাজার কোটি টাকার হিসেব পশ্চিমবঙ্গ দেয়নি। সেই কারণে একশো দিনের টাকা বন্ধ রয়েছে। মিঠুন বলেন, ‘‘মুসলমান ভাইবোনেরা এদের ভোটব্যাঙ্ক নয়। এদের ভোট ব্যাঙ্ক হল দুর্নীতি।’’ শেষে নিজের বাংলা ছবির কিছু সংলাপ পরিবর্তন করে বলেন মিঠুন। গানও শোনান। তৃণমূল অবশ্য মিঠুনের প্রচারকে গুরুত্ব দিচ্ছে না। দলের গোপীবল্লভপুর বিধানসভার পর্যবেক্ষক অজিত মাহাতো বলেন, ‘‘মিঠুনকে এনে সিএএ, একশো দিন নিয়ে মিথ্যাচার করার চেষ্টা করছে বিজেপি। লোকজন প্রবীণ অভিনেতার নাচ-গান দেখতে গিয়েছিলেন। বিজেপিকে কেউ ভোট দেবে না।’’

২০২৪ লোকসভা নির্বাচনের সমস্ত খবর জানতে চোখ রাখুন আমাদের 'দিল্লিবাড়ির লড়াই' -এর পাতায়।

চোখ রাখুন

অন্য বিষয়গুলি:

Lok Sabha Election 2024 Mithun Chakraborty
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE