Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১ ই-পেপার

Bengal Polls: ৭ কোটিতে তারকা কিনেছে বিজেপি! বাম শ্রীলেখার ফেসবুক দাবিতে কোমর বেঁধে আসরে পদ্ম রিমঝিম

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ১৫ মার্চ ২০২১ ১৮:২৮
শ্রীলেখা মিত্র এবং রিমঝিম মিত্র।

শ্রীলেখা মিত্র এবং রিমঝিম মিত্র।

এক তারকাকে দলে পেতে বিজেপি ৭ কোটি টাকা দিয়েছে বলে সোমবার নেটমাধ্যমে অভিযোগ করেছেন অভিনেত্রী শ্রীলেখা মিত্র। তার পরেই শুরু হয়েছে বিতর্ক। অভিযোগের স্বপক্ষে প্রমাণ দিতে না পারলে, শ্রীলেখার বিরুদ্ধে বিজেপি আইনি পথে হাঁটবে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন আর এক অভিনেত্রী তথা বিজেপি নেত্রী রিমঝিম মিত্র।

বামপন্থী শ্রীলেখা সোমবার ফেসবুকে লেখেন, তিনি জানতে পেরেছেন, কোনও এক তারকাকে দলে নেওয়ার জন্য নাকি বিজেপি-র তরফে ৭ কোটি টাকা দেওয়া হয়েছে। সেই পোস্টে অনেকেই নানা মন্তব্য করেছেন। সেখানেই বিজেপি-র সদস্য রিমঝিম এসে প্রশ্ন তোলেন, ‘কাকে’? যদিও শ্রীলেখা সেই প্রশ্নের উত্তর দেননি। কিন্তু তত ক্ষণে শ্রীলেখার এই পোস্টের তলায় মন্তব্যের ঝড় বইতে শুরু করেছে। শ্রীলেখা এর পরে রিমঝিমের উদ্দেশে লেখেন, প্রমাণ-সহ নামটি তিনি জানাবেন। তাতেই রিমঝিম হুঁশিয়ারি দেন, নাম এবং প্রমাণ দেখাতে না পারলে দল আইনের পথে হাঁটবে।

এ বিষয়ে আনন্দবাজার ডিজিটালের তরফে শ্রীলেখার সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ‘‘রিমঝিম মিত্রকে প্রমাণ দেওয়ার দায় আমার নেই। যে দল বলে, ভোটে জিতলে চিটফান্ডের টাকা ফেরত দেব, সেই দলের লোককে কোনও প্রমাণ দেওয়ার দায় আমি অনুভব করি না। আগে ওরা আইনি পদক্ষেপ নিক, তার পরে প্রমাণ দেওয়ার কথা ভাবব।’’ তাঁর দাবি, বিষয়টি কানে এসেছে বলেই, তিনি লিখেছেন। কারও নাম করেননি। ‘‘বিজেপি ভয় দেখাতেই পারে। কারণ ওদের কাছে টাকা আছে। টাকার জোরেই ওরা সাধারণ মানুষকেও ভয় দেখাতে পারে,’’—বলেন শ্রীলেখা।

Advertisement

এখানেই থামেননি শ্রীলেখা। তাঁর মতে, রিমঝিম যখন বিজেপি-তে যোগদান করেন, তখন বলেছিলেন, টলিউডে কাজ পাচ্ছেন না বলেই, এমন সিদ্ধান্ত। নিরাপত্তার জন্য নাকি রিমঝিম ওই দলের সঙ্গে যুক্ত হয়েছিলেন। নেটমাধ্যমে শ্রীলেখার পোস্টের তলায় রিমঝিম অবশ্য লিখেছেন, শ্রীলেখা তাঁর বড় দিদির মতো। তাই তিনি নাম জানতে চেয়েছেন। সে প্রসঙ্গে আনন্দবাজার ডিজিটালের কাছে শ্রীলেখার মন্তব্য, ‘‘কেউ কারও বড় দিদিকে এ ভাবে প্রকাশ্যে আইনি পদক্ষেপের হুমকি দেয় না।’’

এ প্রসঙ্গে রাজ্য বিজেপির মুখপাত্র শমীক ভট্টাচার্যকে জিজ্ঞাসা করা হলে তিনি বলেনন, ‘‘এটি সম্পূর্ণ অবাস্তব এবং ভিত্তিহীন অভিযোগ। এতটাই অবাস্তব যে হাসতেও কষ্ট হচ্ছে।’’

আরও পড়ুন

More from My Kolkata
Advertisement