তবে এ পার বাংলায় নয়, ছবিটি তৈরি হচ্ছে ও পার বাংলায়। অভিনয়ে জয়া আহসান। বাংলাদেশের জনপ্রিয় লেখক আহমদ ছফার জীবনী নিয়ে ছবি। তিনি গল্প, গান, উপন্যাস, কবিতা, প্রবন্ধ, অনুবাদ, ইতিহাস, ভ্রমণকাহিনী মিলিয়ে তিরিশটির বেশি গ্রন্থ রচনা করেছেন। যার মধ্যে ‘অলাতচক্র’ তাঁর আত্মজীবনী বলে মনে করেন অনেকে। সেই কাহিনিই থ্রিডি-তে পর্দায় তুলে ধরা হবে। 
‘অলাতচক্র’-এর পরিচালক হাবিবুর রহমান।
এজবাস্টন থেকে জয়া ফোনে জানালেন, ছবির অনেকটা শুটিং হয়ে গিয়েছে। থ্রিডি শুটের দায়িত্বে ছিল মুম্বইয়ের একটি টিম। ছবির অনেকটা অংশ জুড়েই কলকাতা থাকছে। ‘‘আসলে আমরা পুরনো কলকাতাকে রিক্রিয়েট করছি। বাংলাদেশেই শুট হয়েছে। আহমদ ছফার কাহিনিতে যেমন ভাবে কলকাতার বর্ণনা দেওয়া হয়েছিল, সে ভাবেই সবটা করেছে মুম্বইয়ের টিম।’’ জয়া জানালেন, কলকাতাতেও তাঁরা শুট করবেন।
বাংলাদেশ সরকার থেকে অনুদান দেওয়া হয়েছে ‘অলাতচক্র’র প্রযোজনায়। ছবিতে জয়া নিজে অভিনয়ও করেছেন। এর পর তিনি তাঁর প্রযোজনায় ‘ফুড়ুৎ’এর কাজ শুরু করবেন। অভিনেত্রী জানালেন, টলিউডেও বেশ কয়েকটি ছবি নিয়ে কথাবার্তা চলছে তাঁর। প্রথম থ্রিডি ছবি নিয়ে উত্তেজিত জয়া বলছেন, ‘‘বাংলায় প্রথম বার এ ধরনের কাজ করতে পারছি বলে খুব এক্সাইটেড!’’
মুক্তিযুদ্ধের সময় কলকাতায় শরণার্থী হিসেবে আশ্রিত বাংলাদেশী লেখক দানিয়েল ও ক্যানসারে আক্রান্ত তায়েবার সম্পর্ক এবং মুক্তিযুদ্ধের নানা ঘটনার ছবি ‘অলাতচক্র’।