• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

স্কুলজীবনের নস্টালজিয়ায় ডুব দিচ্ছেন আবির-তনুশ্রী-অর্পিতা

main
ছবির লুকে তনুশ্রী, আবির এবং অর্পিতা।

ধরা যাক, বছর কুড়ি পর পুরনো বন্ধুদের সঙ্গে হঠাৎ দেখা হল আপনার। না, ‘কার্তিক মাসে ধানের ছড়ার পাশে’ কিংবা ‘বাবলার গলির অন্ধকারে’ নয়। বরং পুরদস্তুর প্ল্যান করে এক ‘গ্র্যান্ড রিইউনিয়ন’।

দেখলেন, স্কুলে যে মেয়েটির প্রতি আপনার ভাললাগা ছিল সে আজ কারও স্ত্রী, কারও মা। আবার গ্রুপের সবচেয়ে হ্যান্ডসাম, শান্তস্বভাবের লাজুক ছেলেটি আজ কর্পোরেটের জাঁতাকলে আবিষ্ট। এক নিমেষে আপনার চোখের সামনে ভেসে উঠতে থাকল  এক সঙ্গে টিফিন ভাগ থেকে খেলার মাঠের দৌড়। মনে পড়ে গেল কত শত পুরনো স্মৃতি। হাজার হোক, স্কুল জীবনের বন্ধু বলে কথা, তাঁদের কদরই আলাদা।

এক দল বন্ধুর না-বলা গল্প বলতেই পরিচালক শ্রীমন্ত সেনগুপ্ত নিয়ে আসছেন তাঁর পরবর্তী ছবি ‘আবার বছর কুড়ি পর’। ছবিটিতে অভিনয় করছেন আবির চট্টোপাধ্যায়, অর্পিতা চট্টোপাধ্যায়, তনুশ্রী চক্রবর্তী, অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়, পরাণ বন্দ্যোপাধ্যায়, অনির্বাণ ভট্টাচার্য প্রমুখ।

আবিরের চরিত্রের নাম অরুণ, কর্পোরেট সংস্থায় কর্মরত। অল্প বয়সের অরুণের চরিত্রে দেখা যাবে আর্য দাশগুপ্তকে। এক ডাক্তারের চরিত্রে দেখা যাবে অর্পিতা চট্টোপাধ্যায়কে। তাঁর চরিত্রের নাম বনি। স্কুল লাইফের বনির চরিত্রে অভিনয় করছে দিব্যাসা দাস। তনুশ্রী চক্রবর্তীর চরিত্রটি আবার একেবারে আলাদা। স্বামী, সংসার নিয়ে আলাদাই জগৎ তাঁর। কুড়ি বছর পর দেখা হওয়া চেনা মুখগুলো অনেক বেশি পরিণত। কী হয় এর পর? বলবে, ‘আবার বছর কুড়ি পর’।

ছবির চিত্রনাট্য লিখেছেন শ্রীমন্ত সেনগুপ্ত এবং মোনালি সেন চৌধুরি। সংলাপের দায়িত্বেও রয়েছেন শ্রীমন্ত। সিনেমাটোগ্রাফি সামলাবেন প্রতীপ মুখোপাধ্যায়। সঙ্গীত পরিচালনার দায়িত্ব বর্তেছে রণজয় ভট্টাচার্যের উপর।  

নস্টালজিয়ায় ডুব দিতে চলেছেন বনি-অরুণ-নীলারা। ‘কুড়ি বছরের পর তখন তোমারে’ মনে পড়বে তো?

 

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন