‘বাহুবলী: দ্য বিগিনিং’ মুক্তি পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই তর তর করে বাড়তে থাকে প্রভাসের ভক্ত সংখ্যা। প্রভাস খুব স্পষ্ট করে বুঝিয়ে দিয়েছিলেন যে, তিনি লম্বা রেসের ঘোড়া। গোটা দেশের ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিই প্রায় প্রভাসের ফ্যান হয়ে গিয়েছিল। পরিচালক সঞ্জয় লীলা ভন্সালীরও মনে ধরেছিল প্রভাসকে। আর তাই ‘পদ্মাবত’-এ মহারাওয়াল রতন সিংহের চরিত্রের জন্যও প্রভাসকেই চেয়েছিলেন ভন্সালী।

পদ্মাবতী আর আলাউদ্দিন খিলজির চরিত্রে দীপিকা পাড়ুকোন আর রণবীর সিংহের সঙ্গে প্রায় পাকা কথা হয়েই গিয়েছিল ভন্সালীর। আর প্রভাস তখন ব্যস্ত ছিলেন ‘বাহুবলী: দ্য কনল্কুশন’ এর শুটিংয়ে। কিন্তু শেষ পর্যন্ত রাজি হননি প্রভাস।

আসলে রতন সিংহের চরিত্র প্রভাসের খুব একটা পছন্দ হয়নি। বলিউডে গুঞ্জন যে, প্রভাসের নাকি আলাউদ্দিন খিলজির চরিত্রটাই বেশি পছন্দ ছিল। তার পরে ওই অফার যায় ভিকি কৌশলের কাছে। কিন্তু সেখানে আবার দীপিকা পাড়ুকোন বেঁকে বসেন। শেষমেশ শাহিদ কপূর অভিনয় করেন মহারাওয়াল রতন সিংহের চরিত্রে।

আরও পড়ুন: কুড়ি বছর পর আবার ‘ব্রেথলেস’ গাইলেন শঙ্কর মহাদেবন

আরও পড়ুন: নিকের সঙ্গে আংটিও বদলে ফেললেন নাকি প্রিয়ঙ্কা?

শুধু প্রভাসই নয়। রতন সিহং হতে অফার পেয়েছিলেন শাহরুখ খানও। তিনিও ফিরিয়ে দিয়েছিলেন এই অফার। কারণ, শাহরুখের মনে হয়েছিল ছবির গল্পে আলাউদ্দিন খিলজি আর পদ্মাবতীর চরিত্রেরই গুরুত্ব বেশি।