রবিবার, ২৮ জুলাই উত্তম মঞ্চে হয়ে গেল রবীন্দ্রসঙ্গীতের অনুষ্ঠান ‘রক্তিম মরীচিকা’। শিল্পী শ্রাবণী সেনের একক পরিবেশনার সঙ্গে যোগ্য সঙ্গত ছিল পিয়ানো ও রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের কবিতা পরিবেশনা। দর্শকদের ভিন্ন স্বাদের এই অনুষ্ঠানের সাক্ষী হওয়ার সুযোগ করে দিলেন ‘প্রজ্ঞা’-র কর্ণধার শ্রীমতি গোপা রায়। জানিয়েছেন, এই অনুষ্ঠান থেকে সংগৃহীত অর্থ এমন একটি সংস্থার হাতে তুলে দেওয়া হবে, যারা বয়স্কদের জন্য কাজ করে।

অনুষ্ঠানে প্রাককথনের দায়িত্বে ছিলেন চিত্রপরিচালক কৌশিক গঙ্গোপাধ্যায়। দেড় ঘণ্টার অনুষ্ঠানে নিজস্ব ঘরানা ও গায়কীতে একের পর এক রবীন্দ্রগানে দর্শক-শ্রোতাদের মুগ্ধ করলেন শ্রাবণী। শ্রাবণ-সন্ধ্যা মূর্ত ও রাবীন্দ্রিক হয়ে উঠল শ্রাবণীর অনন্য কণ্ঠে।

তাঁর গানের সঙ্গে পিয়ানোয় ছিলেন সৌমিত্র সেনগুপ্ত। রবি-কবিতার পরিবেশনায় বাচিকশিল্পী সুমন্ত্র সেনগুপ্ত অনবদ্য ও উজ্জ্বল। মঞ্চসজ্জায় তরুণকান্তি বারিক, আলোয় দীপঙ্কর দে এবং ধ্বনিপ্রক্ষেপণে বিদ্যুৎ প্রশংসার দাবি রাখেন।

আরও পড়ুন:‘মাচা করে হারিয়ে যেতে চাই না’

আরও পড়ুন: পর্দায় প্রেমালাপ চলছে, অনেক দিন বিয়ে লুকিয়ে ছিলেন মিকি-মিনির দুই শিল্পী