×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১১ মে ২০২১ ই-পেপার

‘জয় মাতা দি’ না বলায় ৩ মাদ্রাসা ছাত্রকে বেধড়ক মার! এ বার দিল্লিতে

সংবাদ সংস্থা
দিল্লি ৩০ মার্চ ২০১৬ ১২:৫৩

জোরজবরদস্তি নাকি ‘জয় মাতা দি’ বলতে বলা হয়েছিল তিন মাদ্রাসা ছাত্রকে। না বলায় তাঁদের বেধড়ক মারধর করার অভিযোগ উঠল কয়েকজন ‘উগ্র হিন্দুত্ববাদী’ যুবকের বিরুদ্ধে। মারধরে ১৮ বছরের ছাত্র মহম্মদ দিলকাশের হাত ভেঙেছে। শনিবার ঘটনাটি ঘটেছে দিল্লিতে।

মারধরে জখম ওই ৩ ছাত্রের অভিযোগ, ওই দিন সন্ধ্যায় তাঁরা কাছের একটি পার্কে গিয়েছিলেন। আচমকাই কয়েক জন যুবক তাঁদের উপরে চড়াও হন। তাঁদেরকে ‘জয় মাতা দি’ এবং ‘জয় ভারত’ স্লোগান দিতে বলেন। তাতে তাঁরা রাজি হননি। এই নিয়ে দু’পক্ষের মধ্যে তর্ক বিতর্ক শুরু হয়। তারপর আচমকাই ওই ৩ ছাত্রকে লাঠি দিয়ে পেটাতে শুরু করেন তাঁরা। অভিযুক্তেরা তাঁদের অপরিচিত।

আরও পড়ুন: শিশুর জিভ কাটার নালিশ

Advertisement

প্রাথমিক তদন্তের পর পুলিশ অবশ্য জানিয়েছে, ওই ৩ ছাত্রের অভিযোগে ধোঁয়াশা রয়েছে। কারণ, তাঁরা প্রথমে অভিযোগে জানান যে তাঁদেরকে ‘জয় মাতা দি’ বলতে বলা হয়েছিল। তার পর বলেন, তাঁদেরকে ‘ভারত মাতা কি জয়’ বলতে বলা হয়েছিল। তা ছাড়া দু’পক্ষ একে-অপরের পরিচিত বলেও পুলিশের দাবি। ঘটনার দিন দু’পক্ষই ক্রিকেট খেলছিল পার্কে। খেলাকে কেন্দ্র করেও এই ঝামেলা হতে পারে, সন্দেহ পুলিশের।

Advertisement