Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৬ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

VAT: ভ্যাট না-কমানোয় বিজেপির লক্ষ্য বিরোধীরা

দীপাবলির ঠিক আগের সন্ধ্যায় কেন্দ্রীয় সরকার পেট্রলে লিটার প্রতি ৫ টাকা, ডিজ়েলে ১০ টাকা উৎপাদন শুল্ক কমানোর সিদ্ধান্ত নেয়।

নিজস্ব সংবাদদাতা
নয়াদিল্লি ০৬ নভেম্বর ২০২১ ০৭:২৬


প্রতীকী ছবি।

মোদী সরকার পেট্রল-ডিজ়েলে উৎপাদন শুল্ক কমিয়ে রাজ্যগুলিকে ভ্যাট কমানোর ডাক দিয়েছিল। কিন্তু ৪৮ ঘণ্টা কেটে গেলেও পশ্চিমবঙ্গ-সহ কোনও বিরোধী শাসিত রাজ্য তাতে সাড়া দিল না।

২২টি রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল নরেন্দ্র মোদী সরকার কেন্দ্রের শুল্ক কমানোর পরে নিজের ভ্যাট কমিয়েছে। ১৪টি রাজ্য এবং কেন্দ্র শাসিত অঞ্চল সে পথে হাঁটেনি। দুই মিলিয়ে, পেট্রল-ডিজ়েলের দাম কমানো নিয়েও এখন রাজ্যগুলি দু’ভাগে বিভক্ত।

দীপাবলির ঠিক আগের সন্ধ্যায় কেন্দ্রীয় সরকার পেট্রলে লিটার প্রতি ৫ টাকা, ডিজ়েলে ১০ টাকা উৎপাদন শুল্ক কমানোর সিদ্ধান্ত নেয়। তেলের মূল দাম, পরিবহণ খরচ ও উৎপাদন শুল্কের যোগফলের উপরে ভ্যাট আদায় হয় বলে, উৎপাদন শুল্ক কমার সঙ্গে সঙ্গে এমনিতেই রাজ্যের ভ্যাটের বোঝা কিছুটা কমেছিল। এর পর একে একে বিজেপি শাসিত রাজ্যগুলিও পেট্রল-ডিজ়েলে যে ভ্যাট আদায় করে, তার হার কমিয়েছে। ফলে কেন্দ্রের শুল্কের পরে রাজ্যের ভ্যাট কমানোর ধাক্কায় কোনও রাজ্যে লিটার প্রতি ১৩.৭০ টাকা পর্যন্ত পেট্রলের দাম কমেছে। ডিজ়েলের দাম কমেছে ১৯.৫২ টাকা পর্যন্ত। লাদাখের মতো যেখানে ভ্যাটের হার বেশি, সেখানে জ্বালানির দাম কমার মাত্রাও বেশি। আবার উত্তরাখণ্ডে ভ্যাটের হার এমনিতেই কম বলে সেখানে দাম কমেছে কম।

Advertisement

যে সব রাজ্য ভ্যাট কমায়নি

• পশ্চিমবঙ্গ, দিল্লি, রাজস্থান, পঞ্জাব, ছত্তীসগঢ়, মহারাষ্ট্র, তামিলনাড়ু, কেরল, অন্ধ্রপ্রদেশ, তেলঙ্গানা, ওড়িশা, ঝাড়খণ্ড, মেঘালয়, আন্দামান ও নিকোবর

ভ্যাট কমিয়েছে
• বাকি ২২টি রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল

এত দিন বিরোধী দলগুলি মোদী সরকারের সামনে পেট্রল-ডিজ়েলের দাম কমার দাবি তুলছিল। এ বার কংগ্রেস, তৃণমূল, আম আদমি পার্টি, বাম শাসিত রাজ্যগুলি ভ্যাট না-কমানোয় আজ বিরোধী দলগুলিকে নিশানা করেছে বিজেপি। বিজেপির মঞ্চ থেকে সাংবাদিক সম্মেলন করে দলের মুখপাত্র গৌরব ভাটিয়ার প্রশ্ন, যদি কেন্দ্র ও বিজেপি শাসিত রাজ্যগুলি সাধারণ মানুষকে সুরাহা দিতে পারে, তা হলে কংগ্রেস শাসিত রাজ্যগুলি পারবে না কেন! পেট্রল-ডিজ়েলে চড়া শুল্ক আদায়ের জন্য কংগ্রেস নেতা রাহুল গাঁধী মোদী সরকারের বিরুদ্ধে ‘পকেটমারি’-র অভিযোগ তুলেছিলেন। তার পাল্টা জবাবে আজ ভাটিয়া বলেন, এখন বোঝা যাচ্ছে কংগ্রেসের থেকে বড় পকেটমার কেউ নেই।

কংগ্রেস-সহ বিরোধীদের দাবি, মোদী সরকার অনেকখানি শুল্ক বাড়ানোর পরে উপনির্বাচনে ধাক্কা খেয়ে কিছুটা শুল্ক কমিয়ে বাহবা কুড়োতে চাইছে। কিন্তু কেন্দ্রের কর আদায়ের খুব সামান্য অংশই রাজ্যগুলির মধ্যে বিলি করছে। বেশির ভাগটাই সেস আদায় হিসেবে নিজের পকেটে পুরছে। তাই রাজ্যের কোষাগারে টানাটানি চলছে। তা সত্ত্বেও বিজেপি নেতৃত্বের চাপে রাজ্যের বিজেপি মুখ্যমন্ত্রীদের ভ্যাট কমাতে হয়েছে। কিন্তু মেঘালয়েই এনডিএ সরকার ভ্যাট কমায়নি। কংগ্রেস নেতা রণদীপ সিংহ সুরজেওয়ালা বলেন, “হরিয়ানার বিজেপি সরকার পেট্রলে কিছুটা ভ্যাট কমিয়ে ডিজ়েলে তার থেকে বেশি মাত্রায় ভ্যাট বাড়িয়ে দিয়েছে।”

আরও পড়ুন

Advertisement