Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২১ মে ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

নাগা চুক্তির শর্ত জানেন না মুখ্যমন্ত্রী জেলিয়াংও

নাগা চুক্তির শর্ত জানেন না সে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীই— এমন সন্দেহ প্রকাশ করেছিলেন অসমের মুখ্যমন্ত্রী তরুণ গগৈ। তার সত্যতা মিলল নাগাল্যান্ডের ম

নিজস্ব সংবাদদাতা
গুয়াহাটি ১০ অগস্ট ২০১৫ ০৪:০৫
Save
Something isn't right! Please refresh.
Popup Close

নাগা চুক্তির শর্ত জানেন না সে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীই— এমন সন্দেহ প্রকাশ করেছিলেন অসমের মুখ্যমন্ত্রী তরুণ গগৈ। তার সত্যতা মিলল নাগাল্যান্ডের মুখ্যমন্ত্রী টি আর জেলিয়াংয়ের বক্তব্যে। তিনি জানালেন, নাগা জঙ্গি সংগঠন এনএসসিএন আই-এম-এর সঙ্গে কেন্দ্রের চুক্তি স্বাক্ষরের বিষয়ে আগে থেকে তাঁরা কিছুই জানতেন না। জেলিয়াং জানান, চুক্তি সই হওয়ার পরও তার কাঠামো বা শর্ত সম্পর্কে তিনি অন্ধকারে।

বিজেপির মুখপাত্র তথা কেন্দ্রীয় শিল্প প্রতিমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ গত কাল দাবি করেন, নাগাল্যান্ডের মুখ্যমন্ত্রী চুক্তি স্বাক্ষরের বিষয়ে সবই জানতেন। তার দু’দিন আগে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে এ নিয়ে তাঁর কথাও হয়েছিল।

এনএসসিএন আই-এম গোষ্ঠীর মূল দাবি ছিল, নাগাল্যান্ডের পড়শি রাজ্যগুলির নাগা অধ্যূষিত জেলাগুলি মিশিয়ে বৃহত্তর নাগালিম গঠন করা। ওই দাবিতে সম্প্রতি স্বীকৃতি দিয়েছিল নাগাল্যান্ডের সর্বদলীয় সরকার। কিন্তু, চুক্তিতে সেই প্রসঙ্গে কী সিদ্ধান্ত হয়েছে তা জানেন না বলে দাবি করেন জেলিয়াং।

Advertisement

এ দিকে, অঙ্গহানির আশঙ্কায় মণিপুর, অরুণাচল, অসম ইতিমধ্যেই চুক্তির বিরুদ্ধে জোটবদ্ধ হয়েছে। দিল্লিতে সনিয়া গাঁধী-রাহুল গাঁধীর সঙ্গে বৈঠকও করেছেন তাঁরা। গত কাল মণিপুরের মুখ্যমন্ত্রী ওক্রাম ইবোবি সিংহ ও জেলিয়াং আলাদা ভাবে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিংহের সঙ্গে দেখা করেন। ইবোবি জানিয়েছেন, তিনি রাজনাথ সিংহের কাছে চুক্তির প্রতিলিপি চেয়েছেন। জানতে চেয়েছেন, চুক্তির ফলে মণিপুরের ভৌগোলিক সীমানায় কোনও আঘাত লাগবে কি না। রাজনাথ তাঁকে জানিয়েছে, পূর্ণাঙ্গ চুক্তি তৈরি হয়নি। চুক্তি চূড়ান্ত হওয়ার আগে নাগাল্যান্ডের প্রতিবেশী রাজ্যগুলির মুখ্যমন্ত্রীদের মত নেওয়া হবে। প্রধানমন্ত্রীও ইবোবিকে একই ভরসা দেন।

নাগা চুক্তি স্বাক্ষর ও সীতারমণের মন্তব্যের জেরে চাপে পড়েছেন জেলিয়াং। প্রস্তাবিত বৃহত্তর নাগাল্যান্ডের সীমানা প্রসঙ্গে পড়শি মুখ্যমন্ত্রীদের প্রশ্নের জবাব তিনি দিতে পারছেন না। নিজের রাজ্যের মানুষের কাছেও চুক্তি সম্পর্কে কিছু জানাতে পারছেন না। গত কাল প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করেন জেলিয়াং।

আজ তিনি জানান, নাগাল্যান্ডের সীমানাবর্তী রাজ্যগুলির চিন্তা নেই। তবে কী বৃহত্তর নাগালিমের শর্ত মানেনি কেন্দ্র? এ নিয়ে মন্তব্য না করে জেলিয়াং জানিয়েছেন, চুক্তির শর্ত নিয়ে তিনি অন্ধকারে। দীর্ঘদিন ধরে ঝুলে থাকা নাগা সমস্যা নিয়ে অযথা রাজনীতি থেকে বিরত থাকতে অনুরোধ করেন জেলিয়াং। তিনি বলেন, ‘‘প্রধানমন্ত্রীকে অনুরোধ করেছি, চুক্তি চূড়ান্ত হওয়ার আগে যেন সব রাজনৈতিক দল, সামাজিক সংগঠনের মত নেওয়া হয়।’’ চুক্তি স্বাক্ষরকারী ‘জয়েন্ট ইন্টেলিজেন্স কমিটি’র চেয়ারম্যান আর এন রবি জানিয়েছেন, তিনি স্বাধীনতা দিবসের পর সীমানা সংক্রান্ত আলোচনার জন্য নাগাল্যান্ডে আসবেন।

নাগাল্যান্ডের বৃহত্তম সংগঠন নাগা হো হো ও ইএনপিও-র ৮ জন প্রতিনিধি খাপলাং বাহিনীকে ফের সংঘর্ষবিরতিতে ফেরানোর জন্য রাজি করাতে মায়ানমার যাচ্ছেন। নাগা হো হো সূত্রে জানানো হয়, হাসপাতালে ভর্তি অসুস্থ খাপলাং তাঁর গোষ্ঠীর কয়েকজন শীর্ষ নেতার উপরে আলোচনার ভার দিয়েছেন।



Something isn't right! Please refresh.

আরও পড়ুন

Advertisement