×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

২৮ জুলাই ২০২১ ই-পেপার

টিকা কেন বিদেশে গেল? মোদীর বিরুদ্ধে দিল্লি জুড়ে পোস্টার, গ্রেফতার অন্তত ১২

সংবাদ সংস্থা
নয়াদিল্লি ১৫ মে ২০২১ ১৯:০৬
প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বিরুদ্ধে সংগঠিত ভাবেই পোস্টার লাগানোর কাজ করা হয়েছে বলে পুলিশের শীর্ষকর্তাদের একাংশের অনুমান।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বিরুদ্ধে সংগঠিত ভাবেই পোস্টার লাগানোর কাজ করা হয়েছে বলে পুলিশের শীর্ষকর্তাদের একাংশের অনুমান।
ছবি: সংগৃহীত।

করোনার পরিস্থিতি সামলাতে ব্যর্থতার অভিযোগ তো ছিলই। এ বার দেশে টিকার অপ্রতুলতার অভিযোগে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে কাঠগড়ায় তুলে অসংখ্য পোস্টার-ব্যানারে ছেয়ে গেল গোটা দিল্লি। খবর পেয়ে সেগুলি সরিয়ে ফেলার পর অন্তত ১২ জনকে গ্রেফতার করেছে দিল্লি পুলিশ।

দিল্লির একাধিক জায়গায় মোদীকে উদ্দেশ্য করে পোস্টার-ব্যানার সাঁটানো হয়েছে। ওই পোস্টারে হিন্দিতে লেখা, ‘মোদীজি, আপনি আমাদের বাচ্চাদের ভ্যাকসিন বিদেশে কেন পাঠালেন’? কে বা কারা এর পিছনে, তা জানা না গেলেও দিল্লি পুলিশ সূত্রে খবর, পূর্বাঞ্চলীয়, পূর্ব, মধ্য এবং উত্তর-পূর্ব— রাজধানীর ৪টি পুলিশ ডিভিশনেই প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে এ ধরনের বহু পোস্টার-ব্যানার পড়েছে। খবর পেয়ে পুলিশকর্মীরা সেগুলি সরিয়ে ফেলেন। সেই সঙ্গে ডিফেসমেন্ট অব পাবলিক পপার্টি অ্যাক্ট-সহ একাধিক ধারায় ১৩টিরও বেশি এফআইআর করা হয়েছে। প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে সংগঠিত ভাবেই এই পোস্টার লাগানোর কাজ করা হয়েছে বলে পুলিশের শীর্ষকর্তাদের একাংশের অনুমান।

কোভিড রোগীদের চিকিৎসায় অক্সিজেন, শয্যা-সহ টিকার অপ্রতুলতা নিয়ে দেশ জুড়েই হাহাকার শুরু হয়েছে। মোদী সরকারের টিকা নীতিও আদালতে প্রশ্নের মুখে পড়েছে। ল্যানসেটের মতো নামী গবেষণা পত্রিকার সম্পাদকীয়তেও কোভিড মোকাবিলায় সমালোচনা করা হয়েছে মোদী সরকারের। বিরোধী দলগুলোর কটাক্ষ তো রয়েইছে।

Advertisement

করোনা পরিস্থিতি সামলাতে কেন্দ্রীয় সরকারের বিরুদ্ধে ব্যর্থতার অভিযোগ তুলেছেন বিজেপি-র এককালের শরিক শিবসেনা থেকে রিজার্ভ ব্যাঙ্কের প্রাক্তন গভর্নর রঘুরাম রাজনের মতো ব্যক্তিত্ব। এই আবহে বিরোধীদের অভিযোগ, করোনার দ্বিতীয় তরঙ্গ রুখতে ব্যর্থ কেন্দ্র।

এমনও বলছেন বিরোধীরা যে, প্রচারের ঢক্কানিনাদ ছাড়া আর কিছুই করতে পারেননি মোদী। এর জেরে মহারাষ্ট্র, উত্তরপ্রদেশ, কর্নাটক, দিল্লি-সহ একাধিক প্রান্তে সংক্রমণ হু হু করে বেড়েছে। দিল্লিতে শোচনীয় পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে। হাসপাতালগুলিতে অক্সিজেন সঙ্কটের পর টিকারও জোগান কমতে শুরু করেছে। বিরোধীদের অভিযোগ, শ্লথ গতিতে টিকা কেনা ও টিকা জোগান নিয়ে রাজ্যগুলির কাঁধে দায় ঠেলে দিতে ব্যস্ত কেন্দ্র। এই আবহে খোদ রাজধানীর বুকে একাধিক জায়গায় মোদী-বিরোধী পোস্টার তাৎপর্যপূর্ণ।

Advertisement