Advertisement
০৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৩
Terrorism

সন্ত্রাসের চেয়েও বড় বিপদ মাদক: দিলবাগ

গত কাল সিআরপি-র অতিরিক্ত ডিজি দলজিৎ সিংহ ও জম্মু জ়োনের অতিরিক্ত ডিজি মুকেশ সিংহের সঙ্গে ডোডা-কিস্তওয়ার-রামবন ঘুরে দেখেন দিলবাগ।

ডিজি দিলবাগ সিংহ।

ডিজি দিলবাগ সিংহ। ফাইল চিত্র।

সংবাদ সংস্থা
জম্মু শেষ আপডেট: ০৫ ডিসেম্বর ২০২২ ০৭:৩৪
Share: Save:

জম্মু-কাশ্মীরে পাকিস্তানি মদতে পুষ্ট সন্ত্রাসের অধ্যায় প্রায় শেষ হয়ে এসেছে বলে দাবি করলেন পুলিশের ডিজি দিলবাগ সিংহ। তাঁর মতে, এখন আরও বড় সমস্যা হয়ে দাঁড়িয়েছে মাদক। পাকিস্তানই মাদক পাচার করে জম্মু-কাশ্মীরের সমাজকে নষ্ট করার চেষ্টা করছে বলে দাবি তাঁর।

Advertisement

গত কাল সিআরপি-র অতিরিক্ত ডিজি দলজিৎ সিংহ ও জম্মু জ়োনের অতিরিক্ত ডিজি মুকেশ সিংহের সঙ্গে ডোডা-কিস্তওয়ার-রামবন ঘুরে দেখেন দিলবাগ। ধরমুন্ডে সেনার ডেল্টা ফোর্সের সদরে একটি বৈঠকও করেন তিনি।

পরে সাংবাদিক বৈঠকে বলেন, ‘‘পাক মদতে পুষ্ট সন্ত্রাসের অধ্যায় প্রায় শেষ হয়ে এসেছে। এর কৃতিত্ব জম্মু-কাশ্মীরের বাসিন্দাদের। কিন্তু বড় সমস্যা হয়ে দাঁড়িয়েছে মাদক।’’ দিলবাগ জানিয়েছেন, চলতি বছরে এখনও পর্যন্ত জম্মু-কাশ্মীরে মাদক সংক্রান্ত ১২০০ মামলা দায়ের হয়েছে। গ্রেফতার হয়েছে ২ হাজার জন। দিলবাগের বক্তব্য, ‘‘মাদক-বিরোধী প্রচারে নামতে হবে যুব সমাজকেই। সন্ত্রাস ব্যক্তিকে নিশানা করে। মাদক গোটা পরিবারকে নষ্ট করে দেয়। জম্মু-কাশ্মীরে মাদকের বাড়বাড়ন্তের পিছনে রয়েছে পাকিস্তান। এ ভাবে তারা যুব সমাজকে নষ্ট করতে ও জঙ্গি কার্যকলাপের জন্য অর্থ সংগ্রহ করতে চাইছে।’’ পুলিশের দাবি, সীমান্ত পেরিয়ে ড্রোনের মাধ্যমে পাকিস্তান থেকে মাদক পাঠানো হচ্ছে।

অন্য দিকে সাইবার সন্ত্রাসের মোকাবিলা করার জন্য সাইবার নিরাপত্তা বিশেষজ্ঞদের একটি দল তৈরি করছে জম্মু-কাশ্মীর পুলিশ। পুলিশের নয়া সাইবার নীতি অনুযায়ী, কেন্দ্রীয় সরকারের ‘কম্পিউটার এমার্জেন্সি রেসপন্স টিম’ (সিইআরটি)-এর মতো একটি দল তৈরি করতে চায় জম্মু-কাশ্মীর পুলিশ।

Advertisement
(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.