Advertisement
২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২
Murder

ঘরে ডেকে পর পর ছুরির কোপ! সাত বছরের বালিকাকে খুন করে যুবক বললেন, ‘সাহায্য করছিলাম’

পুলিশ এই ঘটনায় ওই যুবককে গ্রেফতার করেছে। তার বাড়ি বুলডোজার চালিয়ে ভেঙে দেওয়া হয়েছে। তবে পুলিশ বাড়িটি ভাঙতে গেলে অভিযুক্তের আত্মীয়রা ইট পাথর ছুড়ে পাল্টা পুলিশকে আক্রমণ করে।

প্রতীকী ছবি।

প্রতীকী ছবি।

সংবাদ সংস্থা
নয়াদিল্লি শেষ আপডেট: ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২২ ২৩:৩৭
Share: Save:

সাত বছরের শিশুকে ঘরে ডেকে ক্রমাগত ছুরি দিয়ে কোপালেন এক যুবক। শিশুটির যন্ত্রণার চিৎকারে পড়শিরা ছুটে আসেন। তাকে বাঁচানোর চেষ্টাও করেন। কিন্তু ওই যুবক কাউকে ভিতরে ঢুকতে দেননি। অবিরাম আঘাতে শিশুটি অচেতন হয়ে পড়লে দরজা খুলে বেরিয়ে আসেন তিনি। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, সে সময় তার গোটা শরীর রক্তে ভেসে যাচ্ছিল।

দ্রুত শিশুটিকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার ব্যবস্থা করেন পড়শিরাই। তবে ততক্ষণে অনেক দেরি হয়ে গিয়েছে। চিকিৎসকরা তাকে মৃত বলে ঘোষণা করে।

পুলিশ এই ঘটনায় ওই যুবককে গ্রেফতার করেছে। তার বাড়ি বুলডোজার চালিয়ে ভেঙে দেওয়া হয়েছে। তবে পুলিশ বাড়িটি ভাঙতে গেলে অভিযুক্তের আত্মীয়রা ইট পাথর ছুড়ে পাল্টা পুলিশকে আক্রমণ করে। ওই যুবক মানসিক রোগের শিকার বলেও দাবি করে।

আপাতত, পুলিশ ওই যুবকের বিরুদ্ধে খুনের অভিযোগ দায়ের করে তাকে হেফাজতে নিয়েছে। তবে জেরায় ওই যুবক পুলিশকে জানিয়েছেন, তিনি ওই শিশুটিকে সাহায্য করারই চেষ্টা করছিলেন। শিশুটির বাবা-মা মারা গিয়েছেন বেশ কয়েকবছর আগে। অভিযুক্ত যুবক পুলিশকে জানিয়েছেন, তিনি শিশুটিকে তার বাবা মায়ের কাছে পাঠানোর চেষ্টা করছিলেন। কারণ সে মাঝে মাঝেই তাঁর কাছে বাবা মায়ের সঙ্গে দেখা করিয়ে দেওয়ার আবদার করত l

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.