Advertisement
০৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৩
sameer wankhede

Sameer Wankhede: কেন মুসলিম মতে বিয়ে জানিয়ে নবাবকে পাল্টা চ্যালেঞ্জ সমীরের, প্রমাণ করুন ধর্ম বদলেছি

বুধবারের বিতর্ক শুরু হয় একটি নিকাহনামাকে কেন্দ্র করে। টুইটারে মুসলিম বিয়ের শংসাপত্রটি প্রকাশ করে নবাব দাবি করেন, সেটি সমীরের প্রথম বিয়ের।

সমীরের বিরুদ্ধে নবাবের আনা অভিযোগ সমর্থন করেছিলেন এক মৌলবি।

সমীরের বিরুদ্ধে নবাবের আনা অভিযোগ সমর্থন করেছিলেন এক মৌলবি। ফাইল চিত্র।

সংবাদ সংস্থা
মুম্বই শেষ আপডেট: ২৭ অক্টোবর ২০২১ ১৭:০৭
Share: Save:

যুদ্ধ শুরু হল। একতরফা অভিযোগ আসছিল এতদিন। বুধবার দেখা গেল দু’ পক্ষই চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দিচ্ছেন একে অপরকে। দিন কয়েক আগেও ঝগড়ার কেন্দ্রে মাদক মামলার মূল অভিযুক্ত আরিয়ান খান ছিলেন। এখন পাশা বদলেছে। মুম্বইয়ের প্রমোদতরী থেকে মাদক উদ্ধার মামলায় যাবতীয় আলেকবৃত্ত নিজেদের দিকে টেনে নিয়েছেন দু’জন—মহারাষ্ট্রের উন্নয়ন মন্ত্রী নবাব মালিক এবং এনসিবি কর্তা সমীর ওয়াংখেড়ে।

গত বেশ কয়েকদিন ধরে সমীরের বিরুদ্ধে একের পর এক অভিযোগ এনেছেন নবাব। সমীর কখনও সেই অভিযোগ অস্বীকার করেছেন। কখনও জবাব দেননি। বুধবার সকালেও সমীরের সততা নিয়ে প্রশ্ন তুলে নবাব একটি টুইট করেছিলেন। তবে এ বার এনসিবি কর্তা চুপ করে থাকেননি। পাল্টা চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দিয়ে নবাবকে বলেছেন, ‘‘ক্ষমতা থাকলে অভিযোগ প্রমাণ করে দেখান।’’

Advertisement

বুধবারের বিতর্ক শুরু হয়েছিল একটি নিকাহনামাকে কেন্দ্র করে। মুসলিম মতে বিয়ের শংসাপত্রই হল নিকাহনামা। টুইটারে তেমনই একটি নিকাহনামার ছবি প্রকাশ করে নবাব দাবি করেছিলেন সেটি এনসিবি কর্তা সমীরের প্রথম বিয়ের শংসাপত্র। তাঁর স্পষ্ট ইঙ্গিত ছিল, জন্মসূত্রে মুসলিম হয়েও সমীর চাকরির পাওয়ার জন্য নিজেকে প্রান্তিক হিন্দু সাজিয়ে ভুয়ো শংসাপত্র দাখিল করেছিলেন। এমনকি এনসিবির রেকর্ডে তাঁর বাবার নামও ভুল রয়েছে। নবাবের এই অভিযোগকেই চ্যালেঞ্জ জানিয়েছেন সমীর। বলেছেন, ‘‘যদি ক্ষমতা থাকে তবে প্রমাণ করে দেখান আমি ধর্ম বদলেছি।’’

সমীর বলেছেন, আমি জন্মসূত্রে একজন হিন্দু। আর আমার জন্ম হিন্দু পরিবারে। আমার মা ছিলেন মুসলিম। তবে আজ পর্যন্ত আমি নিজের ধর্ম বদলাইনি। মহারাষ্ট্রের মন্ত্রী অবশ্য সমীরের জবাবে একটুও দমে যাননি। পাল্টা তিনিও বলেছেন,‘‘আমার অভিযোগ ভুল প্রমাণ করতে পারলে রাজনীতি ছেড়ে দেব।’’

এর আগে নবাবের বিরুদ্ধে তথ্য সংক্রান্ত দুর্নীতির অভিযোগ এনেছিলেন নবাব। বলেছিলেন, চাকরির জন্য নিজেকে প্রান্তিক হিন্দু সাজিয়ে ভুয়ো শংসাপত্র দাখিল করেছিলেন সমীর। সেই অভিযোগ প্রমাণ করতেই সমীরের মুসলিম বিয়ের শংসাপত্র প্রকাশ করেছিলেন নবাব। সমীর জানিয়েছেন, তাঁর মায়ের ইচ্ছেতেই তিনি মুসলিম মতে বিয়ে করেছিলেন। তবে আইনত তাঁর বিয়ে হয় বিশেষ বিবাহ আইনে। সমীর বলেছেন, ‘‘নবাব মালিকের কাছে যদি আমার ধর্ম বদল করার কোনও প্রমাণ থেকে থাকে, তবে তিনি তা দেখাতে পারেন। আমার বাবা ওঁকে আমার বিয়ের আইনি শংসাপত্র দেখিয়ে দেবেন।’’

বুধবার অবশ্য নবাবের আনা অভিযোগ সমর্থন করেছিলেন এক মৌলবি। ২০০৬ সালে তিনিই শাবানা কুরেশির সঙ্গে সমীরের প্রথম বিয়ে দিয়েছিলেন। একটি সাক্ষাৎকারে ওই মৌলবী বলেছিলেন, ‘‘১৫ বছর আগে বিয়ের দিন নিজেকে মুসলিম বলেই পরিচয় দিয়েছিলেন সমীর। তাঁর বাবাও নিজের নাম বলেছিলেন দাউদ। এখন যদি সমীর বলেন তিনি মুসলিম নন, তবে তিনি মিথ্যে বলছেন।’’

Advertisement
(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.